শুরু হয়ে গিয়েছে কাউন্টডাউন। ঐতিহাসিক টেস্ট থেকে ব্যবধান এখন কমে গিয়েছে ১০০ ঘন্টারও নীচে। বলতে গেলে কলকাতা এখন গেলাপি রঙে নিজেক রাঙিয়ে নিয়েছে। সাধারণের জন্য টিকিট প্রায় নিঃশ্বেষ। বহুদিন বাদে ক্রিকেট জ্বরে কাবু কলকাতা আর খেলা পাগল কলকাতাকে মাতিয়ে দিতে আজ শহরে পা রাখলেন ভারত অধিনায়ক বিরাট কোহলি। একই সঙ্গে এসে পৌঁছলেন ভারতের ক্রিকেট দলের সহ-অধিনায়ক অজিঙ্কা রাহানে।

আরও পড়ুন-শহরে পা রাখলেন বিরাটরা, ক্রিকেট জ্বরে কাঁপছে কলকাতা, দেখুন ভিডিও...

মঙ্গলবার সকালেই কলকাতা বিমানবন্দরে পৌঁছন বিরাট কোহলি এবং অজিঙ্কা রাহানে। সিএবি-র পক্ষ থেকে আধিকারিকরা উপস্থিত ছিলেন আগে ভাগেই। বিমানবন্দরেই একপ্রস্থ অভ্যর্থনা জানানো হয় বিরাট ও অজিঙ্কাকে। ভারতীয় ক্রিকেটাররা এদিন দিনভরই দফায় দফায় কলকাতা পৌছবেন। যার ফলে আন্তর্জাতিক এই মেগা টেস্ট নিয়ে সংবাদমাধ্যমেও রয়েছে তুমুল উন্মাদনা। বিভিন্ন সংবাদমাধ্যেমর প্রতিনিধিরা সেদিন সকাল থেকে কলকাতা বিমানবন্দরে হাজির হয়ে গিয়েছেন। স্বভাবতাই বিরাট ও রাহানে বিমানবন্দরের লাউন্সের বাইরে পা রাখতেই মিডিয়ার ফোকাসের সামনে পড়ে যান। তবে বিমানবন্দরে মিডিয়ার সামনে কোনও প্রতিক্রিয়া দেননি ভারতীয় ক্রিকেট দলের অধিনায়ক ও সহ অধিনায়ক।

আরও পড়ুন-দ্বিতীয় টেস্টের আগ পর্যন্ত বিশ্রাম নেই ভারতীয় ক্রিকেটারদের, সাফ জানিয়ে দিলেন বিরাট...

মঙ্গলবার দিনভর ভারত এবং বাংলাদেশ দলের ক্রিকেটাররা কলকাতা পৌঁছবেন। সূত্রের খবর আজ দুপুরের মধ্যে কলকাতায় পা রাখছে গোটা বাংলাদেশ দল। তবে ভারতীয় দলের একমাত্র রোহিত শর্মা ছাড়া আর কেউ এদিন কলকাতায় পা রাখছেন না। মুম্বাই থেকে রোহিতের ফ্লাইট আজ দুপুরেই কলকাতা বিমানবন্দরে পৌঁছানোর কথা। মহম্মদ সামি, ঋষভ পন্থ-সহ ভারতীয় ক্রিকেট দলের বাকি সদস্যরা বুধবার সকালে কলকাতায় পৌঁছবেন। মঙ্গলবার সন্ধে থেকেই দুই দলের ক্রিকেটারদের অনুশীলন শুরু করার কথা। বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের সকলেই যেহেতু আজ কলকাতায় পা রাখছেন সেহেতু তাদের অনুশীলন শুরু করা নিয়ে কোনও অসুবিধা নেই। বিরাট কোহলি, অজিঙ্কা রাহানে এবং রোহিত শর্মারা আজ অনুশীলনে নামেন কিনা  সেদিকে তাকিয়ে ক্রিকেট প্রেমীরা। যে কোনও টেস্ট ক্রিকেটের আগে এসব অনুশীলনকে ঘিরে ক্রিকেটপ্রেমীরা মাঠে ভিড় জমান। ম্যাচের আগে এই অনুশীলন যে কোনও ক্রিকেট প্রেমীদের কাছে খুবই আকর্ষণের। দিন-রাতের টেস্টে যে ইতিহাস তৈরি হচ্ছে তার জন্য ক্রিকেটপ্রেমীরা উত্তেজনায় টগবগ করে ফুটছেন। সকলেই এখন অপেক্ষা করছেন অনুশীলনে গোটা ভারতীয় দলকে একসঙ্গে দেখতে। আর এই অনুশীলনে অন্যতম আকর্ষণ গোলাপি বল। দিল্লীতে প্রথম টেস্ট শেষ হয়ে যাওয়ার পরই গোলাপি বল নিয়ে দফায় দফায় অনুশীলন করেছে ভারতীয় ক্রিকেট দল। টেলিভিশন নিউজ চ্যানেলের খবরে সেই অনুশীলনের ফুটেজ এবং প্রিন্ট ও ডিজিটাল মিডিয়ায় সেই সব খবর পড়ে মনে মনে সুখ অনুভব করেছেন কলকাতার ক্রিকেটপ্রেমীরা। যার জন্য গোলাপি টেস্টের সময় যত এগিয়ে আসছে ততই যেন তর সইতে পারছেন না  কলকাতার ক্রিকেটপ্রেমীরা। গোলাপি বলে সামি-ইশান্ত-উমেশ-দের স্যুইং কতটা বিষাক্ত হয়ে উঠতে পারে তা অনুশীলনেই চাক্ষুষ করতে চাইছেন। সুতরাং ভারতীয় ক্রিকেট দল মঙ্গলবার না নামলে ক্রিকেটপ্রেমীরা একটু হতাশ হতেই পারেন। কিন্তু তাতে গোলাপি টেস্টের উত্তেজনার পারদ যে বিন্দুমাত্র কমবে না তা ১০০ শতাংশ গ্যারান্টি।