পরিচালকঃ দেবমিত্র বিশ্বওয়াল

অভিনেতা-অভিনেত্রীঃ নাওয়াজ উদ্দিন, আথিয়া শেট্টি

গল্পঃ বিয়ে পাগল নাওয়াজ। মেয়ে যেমনই হোক বিয়ে করা নিয়ে কথা। অন্যদিকে আথিয়ার নজর এনআরআই-এর দিকে। বিয়ে নিয়ে তাঁর চোখে স্বপ্ন অনেক বেশি। কীভাবে সেই স্বপ্নপূর্ণ করা যায় তা নিয়ে পরিকল্পনাও অনেক। কিন্তু তাঁরই জীবনে আসে নাওয়াজ। কী হবে এই সম্পর্কের পরিণতি! তারই গল্প বলে এই ছবি।  

অভিনয়ঃ নাওয়াজ উদ্দিন প্রতিটি ছবিতে যেমন নিজের ছাপ রাখে থাকেন, এই ছবিতেও তার ব্যতিক্রম ঘটল না। অভিনয়তেই বাজিমাত করলেন অভিনেতা। অনবদ্য উপস্থাপনা। চরিত্রের সঙ্গে সামঞ্জস্য বজায় রেখেই প্রকাশ্যে নাওয়াজ। অন্যদিকে আথিয়া যথেষ্ট মানানসই তাঁর চরিত্রে। অভিনয়ের ক্ষেত্রে ছাপ রেখে যাওয়া চেষ্টাও নজর কাড়ে অভিনেত্রী।

চিত্রনাট্যঃ গল্পে হাস্যরস বেশ নজর কাড়ে। আদ্যপান্ত মজার ছলে চিত্রনাট্য লেখা হলেও মাঝে মধ্যে প্রাসঙ্গিকতা বজায় রেখেই সংলাপের ব্যবহার করা হয়েছে ছবিতে। আবেগ আছে গল্প আছে, কিন্তু কোথাও গিয়ে যেন বড্ড বেশি হালকা মেজাজে তুলে ধরায় গল্পে বুনটের অভাব দেখা যায়। যা গল্পের উপস্থাপনাতে প্রভাব ফেলে।  

সিনেম্যাটোগ্রাফিঃ  ছবির সিনেম্যাটোগ্রাফি নিয়ে বিশেষ কিছু বলার না থাকলেও মোটের ওপর তা বেশ ভালো। নজর কাড়ে সকলের। অনবদ্য দৃশ্যগ্রহণ। ছবির সেট থেকে শুরু করে লোকেশন শ্যুট, সবেতেই এক ভারসাম্য বজায় রাখা হয়। গানের দৃশ্যও বেশ সুন্দর। তবে মাঝে মধ্যে সিক্যুয়েন্সে ভারসাম্যের অভাব নজরে আসে। 

পরিচালনাঃ  সময়ের সঙ্গে তাল মিলিয়েই ছবিটিকে তৈরি করা হয়েছে। যেখানে একটি মেয়ে তাঁর স্বপ্ন, বন্ধুদের কাছে নিজেকে স্পেশ্যাল করে তোলা, সোশ্যাল মিডিয়ায় ব্যবহার স্থান পেয়েছে, ঠিক তেমনভাবেই গল্পে জোরালো ইঙ্গিতের বরই অভাব ছিল। ছবির আদ্যপান্ত জুড়ে রয়েছে বিনোদনের অপেক রসদ। তবে পরিচালক ছবিটিকে নিয়ে আরও একটু যত্নশীল হতে পারতেন।