করোনাভাইরাস পরীক্ষার ফল ইতিবাচক এল অমিত শাহ-এর। রবিবার নিজেই টুইট করে এই কথা জানালেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী। ডাক্তারদের পরামর্শে হাসপাতালে ভর্তি হচ্ছেন বিজেপির প্রাক্তন সর্বভারতীয় সভাপতি।

বিকাল ৫ টার কিছু আগে টুইট করে অমিত শাহ জানান, করোনার প্রাথমিক উপসর্গগুলি দেখা গিয়েছিল তাঁর শরীরে। তারপরই তিনি পরীক্ষাটি করিয়েছিলেন। রিপোর্টটি পজিটিভ এসেছে। তবে তাঁর শরীর স্বাস্থ্য ঠিক আছে বলেই আশ্বস্ত করেছেন বিজেপি নেতা। তা সত্ত্বেও চিকিৎসকরা ঝুঁকি না নিয়ে তাঁকে হাসপাতালে ভর্তি হতে বলেছেন।

গত কয়েকদিন যাঁরা তাঁর সঙ্গে সংস্পর্শে এসেছিলেন তাঁদের নিজেদের বিচ্ছিন্ন করার অনুরোধ করেছেন অমিত শাহ। তাঁদের পরীক্ষা করানোর পরামর্শও দিয়েছেন।

কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর ব্যক্তিগত রক্ষী, গাড়ির চালক, দপ্তর-কার্যালয়ের কর্তা-কর্মী এবং গৃহ পরিচারক - প্রত্যেকেরই এখন করোনা সংক্রমণের আশঙ্কা রয়েছে। এছাড়া অমিত শাহ-এর গত কয়েকদিনের কর্মসূচি ঘেঁটে দেখা যাচ্ছে, গত ২৪ জুলাই মণিপুরের বিজেপির নবনির্বাচিত রাজ্যসভার সাংসদ লিসেম্বা সানাজোবা তাঁর সঙ্গে সাক্ষাত করেছিলেন। ভগবান লাল সাহনির নেতৃত্বে জাতীয় পশ্চাদপদ শ্রেণি কমিশন বা এনসিবিসি-র এক প্রতিনিধি দলও দেখা করেছিলেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর সঙ্গে।

গত মে মাসেই অমিত শাহ করোনা আক্রান্ত বলে গুজব রটে গিয়েছিল। কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর স্বাস্থ্য নিয়ে অনেকেই উদ্বিগ্ন হয়েছিলেন। লকডাউনের সময় বেশ কয়েকদিন জনসমক্ষে ছিলেন না অমিত শাহ। তার থেকেই জন্ম নিয়েছিল সেই গুঞ্জন। সেই সময় কেন্দ্রীয় মন্ত্রী টুইট করে এই গুজব দূর করেছিলেন।