রাজ্যসভায় পাশ হয়ে গেল হয়ে জম্মু কাশ্মীর পুনর্গঠন বিল। এর ফলে রাজ্যের তকমা হারালো কাশ্মীর। এবার থেকে জম্মু কাশ্মীর এবং লাদাখ কেন্দ্রশাসিত অঞ্চল হিসেবে গণ্য করা হবে। ভোটাভুটিতে বিলের পক্ষে ১২৫টি ভোট পড়ে। উল্টো দিকে বিলের বিপক্ষে ৬১টি ভোট পড়ে।  

একই সঙ্গে ধ্বনি ভোটে পাশ হয়ে যায় জম্মু কাশ্মীর সংরক্ষণ বিল। এর ফলে সরকারের প্রস্তাব মতো ৩৭০ ধারা এবং ৩৫এ ধারা প্রত্যাহার করা হল জম্মু কাশ্মীর রাজ্য থেকে। এবার থেকে স্বশাসন হারালো কাশ্মীর। দেশের অন্যান্য রাজ্যের মতোই কেন্দ্রের সমস্ত আইনই লাগু হবে কাশ্মীরে। 

ভোটাভুটির আগে সংশোধনী বিল পেশ করে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ দাবি করেন, এই বিল পাশ হলে ভারতের অভিন্ন অংশ হিসেবে আত্মপ্রকাশ করবে জম্মু কাশ্মীর। উপত্যকায় সন্ত্রাসবাদের সমস্যাতেও ইতি টানা সম্ভব হবে বলে দাবি করেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী। বিরোধীদের বিলকে সমর্থন করার আবেদন জানান অমিত শাহ। 

অমিত শাহ অবশ্য এ দিন সংসদে বিরোধীদের আশ্বস্ত করে বলেন, পরিস্থিতি স্বাভাবিক হয়ে গেলেই ফেরে কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলের বদলে রাজ্য হিসেবে স্বীকৃতি ফিরিয়ে দেওয়া হবে জম্মু কাশ্মীরকে।