সব স্নায়ুযুদ্ধের অবসান ঘটিয়ে শেষবেলায় ছক্কা হাঁকালেন প্রাক্তন ভারতীয় ক্রিকেটার। কংগ্রেস হাইকমান্ড সনিয়া গান্ধী পঞ্জাব প্রদেশ কংগ্রেস কমিটির সভাপতি হিসেবে নিযুক্ত করেছেন কংগ্রেস বিধায়ক নভজ্যোৎ সিং সিধুকে। রবিবার সন্ধ্যে বেলা এই নির্দেশ জারি করা হয়েছে দিল্লি থেকে। সিধু ছাড়াও চার জন কার্যনির্বাহী সভাপতি বেছে নেওয়া হয়েছে। তাঁরা হলেন, সংগত সিং গিলজিয়ান, সুখবিন্দর সিং ড্যানি, পবন গোয়েল, আর কিজিৎ সিং নাগরা। 

কংগ্রেস সূত্রের খবর সনিয়া গান্ধীর এই সিদ্ধান্তে তীব্র আপত্তি রয়েছে পঞ্জাবের বর্তমান মুখ্যমন্ত্রী অমরিন্দর সিং-এর। বেশ কয়েক মাস ধরেই সিধুর সঙ্গে অমরিন্দর সিং-এর বিবাদ প্রকাশ্যে আসছিল। কংগ্রেসের শীর্ষ নেতৃত্ব তার সমাধানেরও চেষ্টা করেছিলেন। কিন্তু শেষমেষ সিধুর ওপরেই শিলমোহর দেন সনিয়া গান্ধী। 

সূত্রের খবর কংগ্রেস সাংসদ প্রতাপ সিং বাজওয়ার বাড়িতে ররিবার পঞ্জাবের ১১জন কংগ্রেস সাংসদ বৈঠক করেন। কংগ্রেস হাইকমান্ডের নির্দেশই এই বৈঠক হয়েছিল। বৈঠকে সিধুকে পঞ্জাব কংগ্রেসের প্রধান করা যেতে পারে কিনা তা নিয়েও আলোচনা হয়েছে। যদিও সাংসদরা বিষয়টি এড়িয়ে গিয়ে জানিয়েছেন সংসদের বাদল অধিবেশনের আগে দলীয় রণনীতি নিয়েই আলোচনা হয়েছিল।

 কংগ্রেস সূত্রের খবর পঞ্জাবের মুখ্যমন্ত্রী অমরিন্দর সিংকেও হতাশ করা হবে না। তাঁকেও দলে যোগ্য মর্যাদা দেওয়া হবে। তাঁর নিরলশ প্রচেষ্টায় কংগ্রেস একাধিক বাধা অতিক্রম করেছে বলেও জানান হয়েছে।  যদিও সিধুর সঙ্গে অমরিন্দ সিংএর বিবাদ কারও আজানা নয়। তবে এখন দেখার পঞ্জাবে বিধানসভা ভোটের আগে হাইকমান্ড কী করে দুই নেতার ঠান্ডা লড়াইয়ের অবসান ঘটায়।