বিধাননগর পৌরসভার ৪ তলায় আগুন লেগেছে। ইতিমধ্যেই উপস্থিত মেয়র, দমকল মন্ত্রী, পুলিশ ও দমকলবাহিনী। যুদ্ধকালীন তৎপরতায় চলে আগুন নেভানোর কাজ । বিল্ডিং এর সব জানালা খুলে কিংবা ভেঙে দিয়ে ধোওয়া বার করার চেষ্টা চলছে। আতঙ্কে বাইরে বেরিয়ে এসেছে সবাই। মুহূর্তেই কালো ধোয়ায় ভরে যায় গোটা এলাকা। তবে আগুন বেশি দূর ছড়ানোর আগেই আসে দমকলের ইঞ্জিন। যুদ্ধকালীন তৎপরতায় চলে আগুন নেভানোর কাজ। প্রাথমিকভাবে অনুমান করা হচ্ছে, শর্টশার্কিট থেকেই এই আগুন লেগেছে।

আরও পড়ুন, নমাজের সময়ই নৃশংশ খুন ইকবালপুরে, মৃত মা-আশঙ্কাজনক অবস্থায় ২ মেয়ে


সূত্রের খবর, মেয়র পরিষদের মিটিং চলাকালীন বিধাননগর পৌরনিগমে আগুন লাগে।বিধান নগর কর্পোরেশনের থার্ড ফ্লোরে আগুন লাগার পর একে একে ঘটনাস্থলে দমকলের ছটি ইঞ্জিন এসেছে। জানা গিয়েছে, শুক্রবার বোর্ড মিটিং চলছিল। সেই সময় এসি থেকে ধোঁয়া দেখতে পান মেয়র পারিষদরা। ফায়ার এলার্ম শুনতে পেয়ে তড়িঘড়ি নেমে আসেন মেয়র পরিষদ সদস্যরা। ঘটনাস্থলে আসে দমকলের তিনটি ইঞ্জিন। আপাতত আগুন নিয়ন্ত্রণে। দমকলের প্রাথমিক অনুমান এসি থেকে আগুন লাগে। তবে কী কারণে আগুন খতিয়ে দেখছে দমকল।
 

 

ঘটনাস্থলে উপস্থিত রয়েছেন মেয়র, দমকল মন্ত্রী, পুলিশ। উল্লেখ্য় এর আগেও কসবা, কেষ্টপুর,  কাকুড়গাছি, আনন্দপুর, পার্কসার্কাস, রাজাবাজার, কসবা একের পর এক জায়গায় অগ্নিকাণ্ড হয়েছে। ত যার জেরে এখন রীতিমত সতর্ক প্রশাসন। আর সে জন্য সম্প্রতি ফায়ার রোবটের উদ্ভোধন করেছেন দমকল মন্ত্রী সুজিত বসু।