রাজ্য সরকারের বিরুদ্ধে ফের আন্দোলনে নামার পথে জুনিয়র চিকিৎসকরা। আগামী  মঙ্গলবার লালবাজার অভিযানের ডাক দিয়েছেন তাঁরা। নবান্নে মুখ্যমন্ত্রী যে প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন, তা পূরণ হয়নি বলেই অভিযোগ জুনিয়র চিকিৎসকদের। 

গত ১০ জুন রাতে এনআরএস হাসপাতালে রোগীর পরিবারের হাতে আক্রান্ত হন জুনিয়র চিকিৎসকরা। গুরুতর আঘাত লাগে পরিবহ মুখোপাধ্যায় নামে এক জুনিয় চিকিৎসকের মাথায়। ঘটনার প্রতিবাদে কর্মবিরতি শুরু করেন জুনিয়র চিকিৎসকরা। যা গোটা রাজ্য তো বটেই, দেশেও ছড়িয়ে পড়ে। শুরু হয় চিকিৎসকদের গণপদত্যাগ। সাত দিন ধরে চলা আন্দোলনে ভেঙে পড়েছিল রাজ্যের সরকারি চিকিৎসা ব্যবস্থা। শেষ পর্যন্ত নবান্নে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সঙ্গে জুনিয়র চিকিৎসকদের বৈঠকের পর জট কাটে। জুনিয়র চিকিৎসকদের দাবি মেনে নিয়ে বেশ কিছু প্রতিশ্রুতি দেন মুখ্যমন্ত্রী। 

আরও পড়ুন- 'আমার কিছু চাওয়ার নেই দিদি', মমতাকে কী অভিযোগ সব্যসাচীর, দেখুন ভিডিও

কিন্তু যে এনআরএস কাণ্ড থেকে ঘটনার সূত্রপাত, কিছুদিন আগে সেই ঘটনায় চিকিৎসক নিগ্রহে অভিযুক্ত পাঁচ জনই জামিন পেয়ে যায়। এর পরে ফের স্বাস্থ্য ভবনে রাজ্য প্রশাসনের সঙ্গে বৈঠক হয় চিকিৎসকদের। সেখানেও সরকারের তরফে তাঁদের আশ্বাস দেওয়া হয়, অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে কড়া ব্যবস্থা নেওয়া হবে। যা এখনও নেওয়া হয়নি বলে অভিযোগ জুনিয়র চিকিৎসকদের। শুধু তাই নয়, এর মধ্যে রাজ্যের বেশ কয়েকটি সরকারি হাসপাতালে আবারও চিকিৎসক নিগ্রহের ঘটনা ঘটেছে বলে অভিযোগ। এ সবেরই প্রতিবাদে মঙ্গলবার বেলা দুটোয় লালবাজার অভিযানের ডাক দেওয়া হয়েছে। সেই কর্মসূচিতে যোগ দিতে পারেন সিনিয়র চিকিৎসকরাও। যদিও, ওইদিন জুনিয়র চিকিৎসকরা শান্তিপূর্ণভাবেই লালবাজারে গিয়ে পুলিশের কাছে স্মারকলিপি দেবেন বলেই জানা গিয়েছে।