রাজ্য়ে ডাক্তার ,নার্স ও স্বাস্থ্য় কর্মীদের সাহস জোগাতে এবার বিমার অঙ্ক বাড়ালেন মুখ্য়মন্ত্রী। এক ধাক্কায় এবার ৫ লক্ষ টাকা থেকে বিমার অঙ্ক বেড়ে দাঁড়াল ১০ লক্ষ টাকা।কেবল সরকারি হাসপাতালের ক্ষেত্রেই এই বিমা প্রয়োজ্য় নয় বলে জানিয়েছেন মুখ্য়মন্ত্রী। এর আওতায় আনা হয়েছে বেসরকারি হাসপাতালের কর্মীদেরও। মুখ্য়মন্ত্রী জাানিয়েছেন, এবার বিমার আওতায় আনা হয়েছে সাফাইকর্মীদের।

লকডাউনেও তৃণমূলের গোষ্ঠী সংঘর্ষ, গার্ডেনরিচে ত্রাণ বিলি নিয়ে চলল গুলি

এছাড়াও অ্যাম্বুল্য়ান্স, আয়া এমনকী করোনার নমুনা ক্য়ুরিয়ারকর্মীদের জন্যও এই বিমা প্রযোজ্য। আগে ডাক্তার, নার্স স্বাস্থ্য় কর্মী ও আইসিডিএস- অর্থাৎ আসা কর্মীদের জন্য় এই বিমার কথা বলেচিল রাজ্য় সরকার। নতুন করে এই তালিকায় এদের সবাই ছাড়াও পুলিশ কর্মীদেরও বিমার আওতায় আনা হয়েছে।  তবে শুধু স্বাস্থ্য় কর্মী বা পুলিশকর্মীরা নন, এর আওতায় আনা হয়েছে তাদের পরিবারকেও। 

৩৮ ডিগ্রিও ছাড়াতে কলকাতার পারদ, বুধবার থেকে ফের বৃষ্টির সম্ভাবনা রাজ্য়ে

রাজ্য়ে ইতিমধ্য়েই করোনা আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ২২। মারণ রোগে প্রাণ হারিয়েছেন ২ জন। যার  জরে কোথাও কোথাও হাসপাতালে কাজ করতে এগোচ্ছেন না সাফাইকর্মীরা। বিষটি মুখ্য়মন্ত্রীকে জানিয়েছে স্বাস্থ্য় দফতর। স্বাস্থ্য় ক্ষেত্রে করোনা পরিস্থিতিতে সাহস জোগাতে তাই বিমার অঙ্ক বাডা়লেন মুখ্য়মন্ত্রী।

রাজ্য়ে ২২টি করোনা হাসপাতাল, সংক্রমিত বাড়ছে দেখেই সিদ্ধান্ত স্বাস্থ্য় ভবনের.

পরিস্থিতি যেদিকে এগোচ্ছে তাতে শীঘ্রই আপৎকালীন  পরিষেবার জন্য স্বাস্থ্য় ক্ষেত্রে লোক নিয়োগ করবে রাজ্য় সরকার। নিজেই সেকথা জানিয়েছেন মুখ্য়মন্ত্রী। স্বেচ্ছাসেবক হিসাবে নেওয়া হলেও ওদের হাউস স্টাফের মতোই স্টাইফেন দেওয়া হবে। এদিন রাজ্য়ের বিভিন্ন হাসপাতালের সঙ্গে ভিডিয়ো কনফারেন্সে বৈঠক করেন মুখ্য়মন্ত্রী। সেখানেই সবার সামনে এই ঘোষণা করেন মুখ্য়মন্ত্রী।