শ্রী শ্রী হরিচাঁদ ঠাকুরের জন্মদিন রাজ্যে ছুটির দিন হিসাবে পালন করা হবে। তবে কোনও নির্দিষ্ট দিন নেই।  মধুকৃষ্ণ ত্রয়োদশীতে শ্রীশ্রী হরিচাঁদ ঠাকুরের জন্মতিথিতেই সরকার ছুটি ঘোষণা করবে।  এমনটাই ঘোষণা করলেন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। 

আরও পড়ুন, 'অনেকে আমার মৃত্যু চায়', মমতার কথা শুনে বৈঠকেই কেঁদে ফেললেন বক্সি

 

মধুকৃষ্ণ ত্রয়োদশীতে শ্রীশ্রী হরিচাঁদ ঠাকুরের জন্মতিথি 


মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্য়োপাধ্য়ায় জানিয়েছেন, বড়মা শ্রী হরিচাঁদ ঠাকুর এবং গুরুচাঁদ ঠাকুরের আশ্রমে আমি বহুবার এসেছি। অনেকেই জানেন না ৩০ বছর ধরে বড়মার চিকিৎসা আমি করিয়েছি। মতুয়াদের এত লোকজন আছে কেউ জানতেন না। আমার কাছে এটা কোনও নতুন জায়গা নয়।'মুখ্য়মন্ত্রী আরও বলেন, মধুকৃষ্ণ ত্রয়োদশীতে শ্রীশ্রী হরিচাঁদ ঠাকুরের জন্মতিথি। তবে এর কোনও নির্দিষ্ট দিন নেই। বাংলা মতে ইংরেজি মতেও নেই। তাই যেদিন মেলা হয় সেদিনই ওই তিথি। আপনারা আমাকে ৬ মাস আগে জানিয়ে দেবেন, মধুকৃষ্ণ ত্রয়োদশীতে রাজ্য সরকার ছুটি ঘোষণা করবে।'

 

 

আরও পড়ুন, 'ছিঃ- দেশের একমাত্র মহিলা মুখ্যমন্ত্রীকে গালাগালি', দিলীপকে তিরষ্কার মিমির

 

 নাড্ডার সফরের দিনেই ঘোষণা মুখ্যমন্ত্রীর

 অপরদিকে, মমতা বন্দ্য়োপাধ্য়ায় জানিয়েছেন, মতুয়াদের ডেভেলপমেন্টের জন্য মতুয়া ডেভলপমেন্ট কমিটি তৈরি করেছি। যেখানে ১০ কোর্টি টাকা বরাদ্দ করা হয়েছে। আপনারাই সেই কমিটি ঠিক করে নিন। উল্লেখ্য, বুধবার দুপুরে কলকাতায় এলেন বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি জেপি নাড্ডা। এমনই দিনে ছুটি ঘোষণা করলেন মমতা। সামনেরই বিধানসভার নির্বাচন। তার উপর কিচু দিন আগেই মতুয়াদের বাড়িতে অমিত শাহের মধ্যাহ্নভোজ নিয়েও একাধিক কথা ওঠে। এদিকে ভোটের মুখে সেই মতুয়া প্রসঙ্গেই ফিরলেন মুখ্যমন্ত্রীও।