শুভেন্দু দল ছাড়তে না ছাড়তেই  এবার পুরুলিয়া ভাঙন। দল ছাড়লেন রঘুনাথ পুরসভার প্রাক্তন পুরপ্রধান ভবেশ চট্টোপাধ্যায়। জেলা সম্পাদকের সাধারণ সম্পাদকের পদ থেকেও ইস্তফা দিয়েছেন তিনি।

অভিমানে নাকি রাগে ছেড়ে দিলেন দল তৃণমূলের বর্ষীয়ান নেতা

উল্লেখ্য,  শুভেন্দু অনুগামী বলেই পরিচিত বর্ষীয়ান এই প্রাক্তন নেতা। ইদানিংকালে শুভেন্দুর দুটো সভাতেও উপস্থিত ছিলেন তিনি। আগেই মতপার্থক্য়ের জন্য ভবেশ চট্টোপাধ্যায়কে পুর প্রধানের পদ থেকে সরিয়ে দেয় দল। আর এখন তৃণমূলের চূড়ান্ত ভাঙনের সময় তিনিও ছাড়লেন দল। প্রসঙ্গত, শুভেন্দুর তৃণমূল ছাড়ার পর যে দলের পক্ষে এক বড়সড় ভাঙন শুরু হয়েছে, তা আর বলার অপেক্ষা রাখে না। অপরদিকে আসানসোলের জিতেন্দ্র তিওয়ারি থেকে শুরু করে তৃণমূল দল ছাড়লেন ব্যারাকপুর বিধায়ক শীলভদ্র দত্ত।  

 তৃণমূলের ভাঙনে খোঁচা

 অপরদিকে, তৃণমূলের এমন করুণ অবস্থার সময় মুখ্যমন্ত্রীকে টুইটের খোঁচা দিয়েছেন অমিত মালব্য। বিজেপির আইটি সেলের প্রধান অমিত মালব্য বলেছেন,' যে হারে তৃনমুল বিধায়কদের মধ্যে পদত্যাগের হিড়িক লেগেছে, পিসিকে না শেষ পর্যন্ত পদত্যাগ সংগ্রহ দপ্তর খুলতে হয় তাঁর অফিসে।'