পঞ্চম দফা ভোটের শেষেও রাজ্যে হিংসার বাতাবরণ। এবার মালদায় দুষ্কৃতীদের নিশানায় স্থানীয় প্রার্থী গোপাল সাহা। অভিযোগ তাঁকে খুব কাছ থেকে গুলি করে দুষ্কৃতীরা। তাঁর গলায়  গুলি লেগেছে। রক্তাক্ত অবস্থায় তাঁকে নিয়ে আসা হয়েছে হাসপাতালে। বর্তমানে তাঁর চিকিৎসা চলছে মালদা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে। অবস্থা আশঙ্কা জনক বলেই জানিয়েছেন সহযোগীরা। গলার বাঁ দিকে গুলি লেগেছে। 

এই ঘটনায় রীতিমত ট্রমাতে রয়েছে ৫০ নম্বর মালদা বিধানসভা কেন্দ্রের  বিজেপি প্রার্থী গোপাল সাহা। তাঁর ঘনিষ্টরা জানিয়েছেন, তিনি ভোট প্রচার সেরে ফেরার সময় বেশ কয়েকজন দুষ্কতী তাঁকে লক্ষ্য কের গুলি চালায়।পুরনো মালদা এলাকার ঘটনা। মালদা থানার ঝন্টু মোড়ে এলাকাতে গুলি চালান হয়েছে।  গোপাল সাহাকে লক্ষ্য করে যে সময় গুলি চালিয়েছিল দুষ্কৃতীরা সেই সময় তাঁর আসপাশে প্রচুর ভিড় ছিল। আরও বড় কোনও দুর্ঘটনা ঘটতে পারত বলেও মনে করছেন ঘনিষ্টরা। তাঁর সহযোগীরা জানিয়েছেন  গুলি লাগার সঙ্গে সঙ্গেই তাঁকে হাসপাতালে নিয়ে আসা হয়েছিল। 

গোপাল সাহা মালদা বিধানসভা কেন্দ্রের প্রার্থী। তাঁর গুলি বিদ্ধ হওয়ার খবর ছড়িয়ে পড়ার সঙ্গে সঙ্গে দলীয় নেতা কর্মী ও অনুগামীরা ক্ষিপ্ত হয়ে ওঠেন। রাতের বেলাই চলে আসেন হাসপাতাল চত্ত্বরে। পথ অবরোধেরও ডাক দেন তাঁরা। এক মহিলা বিজেপি কর্মীর অভিযোগ, এই রাজ্যে দুষ্কৃতীরাজ চলছে। ভোট সন্ত্রাসও পাল্লা দিয়ে বাড়ছে। যেখানে এক ভোট প্রার্থী নিরাপদ নয় সেখানে তাঁর মত সাধারণ মানুষরা কী করে নিরাপদে থাকতে পারেন? এই প্রশ্ন তুলে সরব হন তিনি।

মালদার বিজেপি প্রার্থী গুলি বিদ্ধ হওয়ার ঘটনা নিয়ে ইতিমধ্যেই শুরু হয়েছে রাজনৈতিক চাপান উতোর। বিজেপির দাবি গুলি চালিয়েছে তৃণমূল আশ্রিত দুষ্কৃতীরা। দাবি উড়িয়ে  দিয়ে গেরুয়া শিবিরের গোষ্ঠী কোন্দলকেই দায়ি করেছে তৃণমূল। তবে বিজেপি মালদা অবরুদ্ধ করার হুঁশিয়ারি দিয়েছে।