নন্দীগ্রাম তাঁর কাছে লাকি। তাই আগামী বিধানসভা নির্বাচনে নন্দীগ্রাম থেকেই প্রার্থী হতে চান। আজ নন্দীগ্রামের সভা থেকে নিজেই ঘোষণা করে দিলেন মুখ্যমন্ত্রী। ২০১৬ সালের বিধানসভা নির্বাচনে এই কেন্দ্র থেকে প্রার্থী হয়ে বিপুল ভোটে জয়ী হয়েছিলেন শুভেন্দু অধিকারী। দলত্যাগ করে এখন তিনি বিজেপিতে যোগদান করেছেন। সেই বিধায়কহীন নন্দীগ্রামে দাঁড়িয়ে সেখানেই প্রার্থী হতে চান বলে সভা থেকে নিজেই ঘোষণা করলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্য়ায়।

আরও পড়ুন-'ইশ্বর-আল্লা ওদের ক্ষমা করো-ভূল করলে আমাকে থাপ্পড় মেরো', নন্দীগ্রামে একুশের বীজ পুতলেন মমতা

এদিনের সভা থেকে তিনি বলেন, ''নন্দীগ্রাম আমার হল একটা লাকি জায়গা। কেন বলুন তো? ২০১৬ সালের নির্বাচনের আগেই এই নন্দীগ্রাম থেকেই আমি আমার নির্বাচন ঘোষণা করেছিলাম। আগামী ২০২১-এর নির্বাচনে জয়ী হবে তৃণমূল কংগ্রেস। নন্দীগ্রাম থেকে শুরু করে প্রত্যেকটা আসনে জয়লাভ করবে তৃণমূল কংগ্রেস। নন্দীগ্রাম আসনে ভাল লোক দেব। এটা একটা জেনারেল সিট''। এরপরই মুখ্যমন্ত্রী বলেন, ''আমিই যদি নন্দীগ্রামে দাঁড়ায় কেমন হয়। ভাবছিলাম কথার কথা, বললাম। একটু ইচ্ছে হল''।

আরও পড়ুন-'আন্দোলনে নিখোঁজ ১০ পরিবারকে আর্থিক সাহায্য়', নন্দীগ্রামের সভায় পৌঁছলেন মমতা

একইসঙ্গে মুখ্যমন্ত্রী আরও বলেন, ''একটু গ্রামের জায়গা। মনের জায়গা। একটু আমার ভালবাসার জায়গা। সুব্রত বক্সিকে বলব নন্দীগ্রামেও আমার নামটা যেন থাকে। ভবানীপুরের সঙ্গে নন্দীগ্রাম কেন্দ্রেও আমার নামটা যেন থাকে। ভবানীপুর আমার বড় বোন। নন্দীগ্রাম আমার ছোট বোন। আমি এবার দুই বিধানসভা কেন্দ্র থেকে দাঁড়াব''। এরপরই, বিজেপির বিরুদ্ধে স্লোগান তোলেন মুখ্যমন্ত্রী। তিনি বলেন. ''নন্দীগ্রাম দিচ্ছে ডাক, বিজেপি নিপাত যাক''।