বিজেপিতে যোগ দিয়েই তৃণমূলের বিরুদ্ধে হুঙ্কার দিলেন শুভেন্দু অধিকারী। ''শুভেন্দু তৃণমূল ছেড়ে বিজেপিতে মাতব্বরি করতে আসিনি। আমাকে বিশ্বাসঘাতক বলছে। কারা বলছে, যে দলের জন্য একুশ বছর ধরে নিজেকে ত্যাগ করেছি। তাঁরাই আমাকে বিশ্বাসঘাতক বলছে''। মমতাকে নিশানা করে বললেন শুভেন্দু অধিকারী। ''যেখানে আস্থা নেই, সম্মান, বিশ্বাস নেই। সেখানে থাকব না''। মেদিনীপুর থেকে বার্তা শুভেন্দু অধিকারীর।

আরও পড়ুন-'নিজের পরিবারতন্ত্রটা বললেন না' শুভেন্দুর খোলা চিঠি ডাস্টবিনে ফেলে দিতে বললেন সৌগত রায়

বিধানসভা ভোটের প্রাক্কালে অমিত শাহের রাজ্য সফরের প্রথম দিনে মেদিনীপুরের সভায় আনুষ্ঠানিকভাবে বিজেপিতে যোগ দিলেন শুভেন্দু অধিকারী। দল বদলের পর মেদিনীপুরে বিজেপি তাঁর প্রথম সভা থেকে তৃণমূলের বিরুদ্ধে কার্যত হুঁশিয়ারি দিলেন শুভেন্দু। শনিবার তাঁকে সঙ্গে নিয়েই মঞ্চে ওঠেন শুভেন্দু। মঞ্চে শুভেন্দুর হাতে পতাকা তুলে দেন অমিত শাহ। বিজেপি যোগ দিয়ে অমিত শাহকে বড়ভাই বলে সম্বোধন করেন শুভেন্দু। বিজেপিতে যোগ দিয়ে তাঁর প্রথম সভা থেকে বলেন, ''আমি মনে প্রাণে চাই, কলকাতা ও দিল্লিতে একই সরকার থাকুক''। 

আরও পড়ুন-'২০২১-এ একটা পথ বেছে নিতে হবে', দ্বিতীয় ইনিংসের প্রাক্কালে খোলা চিঠি শুভেন্দু অধিকারীর

এরপরই, মেদিনীপুরের সভা থেকে তৃণমূলকে একের পর এক হুঁশিয়ারি দেন শুভেন্দু। করোনা, আমফান থেকে শুরু করে টেট দুর্নীতি। মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্য়ায়কে নিশানা করে তৃণমূল দলকে তীব্র নিশানা করেন শুভেন্দু। এমনকি মুখ্যমন্ত্রী ভাইপো অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়কে ছাড়েননি তিনি। বলেন ''তৃণমূলের ব্যক্তি কেন্দ্রিকতা ও আত্ম সম্মানে ঘা লাগে। অনেকে বলছেন মায়ের সঙ্গে বিশ্বাসঘাতকতা করেছি। আমার মা গায়ত্রী দেবী। দেশ আমার মা। আর কেউ আমার মা নয়''। বিজেপির সভা থেকে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে আক্রমণ শুভেন্দুর।