অবশেষে আসতে চলেছে মাহেন্দ্রক্ষণ, শনিবারই বিজেপিতে যোগ দিতে চলেছেন শুভেন্দু অধিকারী।  এদিকে শনিবারই রাজ্য়ে আসছেন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী অমিত শাহ। সূত্রের খবর,  তাঁর উপস্থতিতেই শুভেন্দুর সঙ্গে তৃণমূলের এতদিনের সম্পর্কের অবসান ঘটবে।

আরও পড়ুন, 'এতদিন কোথায় ছিলেন', জিতেন্দ্রের প্রশংসায় দিলীপ-বাবুল, জল কোন দিকে

 

 

 মঙ্গলবার হলদিয়ায় স্বাধীনতা সংগ্রামী সতীশ সামন্তের জন্মদিন উপলক্ষে একটি অরাজনৈতিক সভায় যোগ দেন শুভেন্দু অধিকারীষ সেই সভা থেকেই হুঁশিয়ারি দেন শুভেন্দু। তিনি বলেন, আমি ব্যাক্তিগত আক্রমণ পছন্দ করি না। যারা পদে আছেন, তাঁদের অনেকেই আমাকে ব্যাক্তিগত আক্রমণ করেছেন। সাধারণ মানুষের আঙুলটা এমন জায়গায় পড়বে যে, অনিল বসু, লক্ষণ শেঠদের মতো অবস্থা হবে' বলেন তিনি।

 

আরও পড়ুন, একুশে জুটবে কি ১০০ আসন তৃণমূলের, ভবিষ্যতবাণী মুকুল রায়ের

 

 

প্রসঙ্গত, ধাপে ধাপে একটু করে তৃণমূল থেকে সব সম্পর্ক ত্যাগ করছেন শুভেন্দু অধিকারী। ২৫ নভেম্বর প্রথমে ইস্তাফা দেন হলদিয়া উন্ন পর্ষদের চেয়ারম্য়ান পদ থেকে। ২০১১ সাল থেকে এই পদে বহাল ছিলেন শুভেন্দু। এরপরেই মন্ত্রীত্ব ছাড়েন শুভেন্দু। ইস্তাফাপত্র পাঠানো হয় মমতা বন্দ্য়োপাধ্যায়ের কালীঘাটের বাড়িতে। কারণ ওই দিন স্যানিটাইজেশনের জন্য নবান্ন বন্ধ ছিল। প্রশাসনিক পদগুলি ছাড়লেও তাঁর বিধায়ক পদটি ছাড়েননি শুভেন্দু। এতদিন জল্পনা ছিল তুঙ্গে। তবে এবার সেই সব জল্পনার অবসান ঘটিয়ে শনিবারই বিজেপিতে যোগ দিতে চলেছেন শুভেন্দু অধিকারী বলে সূত্র মারফত জানা গিয়েছে।