আগামী ২২শে জুলাই উচ্চমাধ্যমিকের ফলপ্রকাশ। ওই দিন দুপুর তিনটেয় প্রকাশিত হবে ফল। উল্লেখ্য, আগেই বাতিল হয়েছে মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষা। পড়ুয়াদের মূল্যায়ন কীভাবে হবে তা ঘোষণা করে মাধ্যমিক শিক্ষা পর্ষদ ও উচ্চমাধ্যমিক শিক্ষা সংসদ। জানিয়ে দেওয়া হয়, মূল্যায়নে প্রাপ্ত নম্বরে সন্তুষ্ট না হলে পরীক্ষায় বসতে পারবে পড়ুয়ারা। 

জানানো হয় উচ্চ মাধ্যমিকের মূল্যায়নের পদ্ধতি সম্পর্কে সংসদের তরফে জানানো হয়েছে, ২০১৯-এর মাধ্যমিকের ৪টি বিষয়ের সর্বোচ্চ নম্বরের ৪০ শতাংশ, ২০২০-র একাদশ শ্রেণির বার্ষিক পরীক্ষার ৬০ শতাংশ নম্বর আর সঙ্গে দ্বাদশ শ্রেণির প্রোজেক্ট ও প্র্যাক্টিক্যালের নম্বর যুক্ত করে উচ্চ মাধ্যমিকের মূল্যায়ন করা হবে। দ্বাদশ শ্রেণি প্রজেক্টের ২০ নম্বর, প্র্যাক্টিক্যালের ৩০ নম্বর ধরে মূল্যায়ন হবে। তবে এই মূল্যায়নের প্রাপ্ত নম্বরে যদি কোনও পড়ুয়া সন্তুষ্ট না হয় তাহলে সে পরীক্ষায় বসতে পারবে। পরিস্থিতি ঠিক হওয়ার পর পরীক্ষা নেওয়া হবে। আর পরীক্ষায় বসলে তার ফলাফলই চূড়ান্ত বলে বিবেচনা করা হবে। ২৩ জুনের মধ্যে স্কুলগুলিকে পরীক্ষার নম্বর জমা দিতে বলা হয়েছে। সব ঠিক থাকলে জুলাইয়ের মধ্যেই মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিকের ফলপ্রকাশ করা যাবে বলে জানানো হয়েছে। 

২২শে জুলাই বিকেল চারটেয় ওয়েবসাইটে জানা যাবে ফল। ২২শে জুলাই বৃহস্পতিবার ফল প্রকাশ করবেন সংসদ সভাপতি। ওয়েবসাইটের পাশাপাশি এসএমএস অথবা মোবাইল অ্যাপের মাধ্যমে ফল দেখতে পাবেন পরীক্ষার্থীরা। ২৩শে জুলাই সকাল ১১টার পর মার্কশিট হাতে পাবেন ছাত্রছাত্রীরা। তবে মাধ্যমিকের ফল কবে প্রকাশিত হবে, সে সম্পর্কে কিছু জানা যায়নি।