দেড় বছরের মেয়েকে নিয়ে গায়ে আগুন লাগিয়ে আত্মঘাতী গৃহবধূ। ঘটনাটি ঘটেছে নদিয়ার তাহেরপুর থানার কামগাছি উত্তর পাড়া এলাকায়।  এই ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে তাহেরপুর থানার পুলিশ। মৃতদেহটি উদ্ধার করে রানাঘাট মহাকুমা হাসপাতাল ময়নাতদন্তের জন্য নিয়ে যাওয়া হয়েছে। 

আরও পড়ুন, টালির ঘরে টিমটিমে আলো, ভাগ চাষির বিদ্যুতের বিল এক লক্ষ টাকা


সূত্রের খবর, বুধবার দুপুর নাগাদ যখন বাড়িতে কেউ ছিলনা,তখনই ঘরে দরজা আটকানো অবস্থায় হঠাৎ আগুন লাগতে দেখে স্থানীয়রা। তড়িঘড়ি সকলে ছুটে এসে আগুন নেভানোর কাজ করে তারা। দরজা খুলে দেখে মা এবং মেয়ে জ্বলন্ত অবস্থায় পড়ে রয়েছে। ঘটনাস্থলে একশো শতাংশ অগ্নিদগ্ধ হয়ে মৃত্যু হয় মা  এবং মেয়ে। বছর চব্বিশের মৃত ওই গৃহবধূর নাম রুমা দাস। এবং তার দেড় বছরের মেয়ের নাম রিয়া দাস। খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে আসে তাহিরপুর থানার পুলিশ। মৃতদেহটি উদ্ধার করে রানাঘাট মহাকুমা হাসপাতাল ময়নাতদন্তের জন্য নিয়ে যাওয়া হয়। পুলিশের প্রাথমিক অনুমান, আত্মহত্যা করে মৃত্যু হয় ওই গৃহবধু-র এবং তাঁর মেয়ের। 

আরও পড়ুন, ফেব্রুয়ারির শেষেই রাজ্য থেকে পুরোপুরি শীতের বিদায়, বসন্ত এসে গিয়েছে কলকাতায়

মৃতা ওই গৃহবধূর পরিবারের দাবি, বছর পাঁচ আগে তাহেরপুর থানা এলাকায় বিয়ে হয় তার। বিয়ের পর থেকেই স্বামী তার ওপর অত্যাচার চালাচ্ছে বলে অভিযোগ। মৃত্যুর আগের দিনস্বামীর বাড়ি থেকে এসে নিজের বাবার বাড়ি চলে আসে। যদিও কী কারনে এমন মর্মান্তিক ঘটনা ঘটেছে, তার তদন্ত শুরু করেছে তাহেরপুর থানার পুলিশ।