রবিবার ৭ জুলাই আহমেদাবাদের ট্রান্সস্টেডিয়া এরিনায় 'পার্সিয়ান সিংহ' তাজিকিস্তানের বিরুদ্ধে ম্য়াচ দিয়ে ইন্টারকন্টিনেন্টাল কাপে ২০১৯ অভিযান শুরু করতে চলেছে ইগর স্টিমাচের ভারতীয় দল। তার আগে ২৫ সদস্যের ভারতীয় দলের নাম ঘোষণা করা হয়েছে। প্রথমবার জাতীয় দলে সুযোগ পেয়েছেন জবি জাস্টিন।

গত বছর এই প্রতিযোগিতায় ফাইনালে কেনিয়াকে পরাজিত করে চ্যাম্পিয়ন হয় ভারত। এই বছর প্রথম ম্যাচের আগে ভারত ও তাজিকিস্তান দুই দলই প্রায় একই রকম অবস্থায় রয়েছে। ভারতের নতুন ক্রোট কোচ স্টিমাচের অধীনে এই ম্যাচে তৃতীয়বারের মতো মাঠে নামবে ভারত। অপরদিকে তাজিকিস্তানের নয়া কোচ উসমান তোশেভ-এর অধীনেও এর আগে তাজিকিস্তান জাতীয় দল মাত্র ২টি ম্যাচই খেলেছে।

টানা ৬টি ম্যাচে জয়হীন অবস্থায় ভারতে এসেছে পার্সিয়ান সিংহরা। অপরদিকে ব্লু টাইগার্স কিন্তু গত পাঁচ ম্য়াচে দুইবার থাইল্যান্ডকে হারিয়েছে। তবে কুরাকাও, বাহারিন ও সংযুক্ত আরব আমিরশাহির বিরুদ্ধে পরাজিত হয়েছে।

স্টিমাচ কোচ হয়ে আসার পর গত মাসে কিংস কাপে কুরাকাও-এর বিরুদ্ধে ৩-১ গোলে হেরে ফাইনালে উঠতে পারেননি সুনিল ছেত্ররা। কিন্তু তারপর থাইল্যান্ডকে হারিয়ে তৃতীয় হয়েছে। স্চটিমাচ বলে দিয়েছেন এখন তাঁরা যেসব ম্যাচ খেলছেন সবগুলিই আসন্ন বিশ্বকাপের যোগ্যতা অর্জনের পর্বে খেলার কথা মাথায় রেখে।

এদিনের ম্যাচে বিশেষ নজর থাকবে জবি জাস্টিনের উপর। গত মরসুমে আইলিগে দুর্দান্ত ফর্মে থাকার পরও তাঁকে উপেক্ষা করেছিলেন আগের জাতীয় কোচ কনস্টান্টাইন। কিন্তু, স্টিমাচ জমানায় তিনি ভারতীয় দলের জার্সি পরার সুযোগ পেয়েছেন। এবার সেই সুযোগ কতটা কাজে লাগাতে পারেন, সেটাই দেখার।

নজরে থাকবেন আনাস এডাথোড়িকাও। এশিয়ান কাপের গ্রুপ পর্ব থেকে বিদায় নেওয়ার পর ভারতীয় রক্ষণ ভাগের এই পুটলার অবসর নিয়ে নিয়েছিলেন। ইন্টারকন্টিনেন্টাল কাপেই তিনি অবসর ভেঙে ফের ফিরে আসছেন।

এর আগে ২০১৩ সালে তাজিকিস্তান-ভারত একটি ফ্রেন্ডলি ম্যাচ হয়েছিল। সেখানে তাজিকিস্তানই ৩-০ ব্যবধানে জিতেছিল। ভারত তাজাকদের বিরুদ্ধে শেষবার জয় পেয়েছিল ২০০৮ সালে। সেই ম্যাচে ৪-১-এ জয় পেয়েছিল ব্লু টাইগার্স। বর্তমান তাজিকিস্তান দলকে এই টুর্নামেন্টে ফেবারিট বলা যাবে না। তাদের দল এখন পরিবর্তনের মধ্য দিয়ে যাচ্ছে। সিনিয়র অনেক ফুটবলারই অবসর নিয়েছেন। তবে তরুণ  ফুটবলারদের খিদে কিন্তু কম নয়। তাই সতর্ক থাকতেই হবে সুনিল-আনাসদের।

দুই দলের সম্ভাব্য প্রথম একাদশ

ভারত - গুরপ্রিত, শুভাশীষ, আনাস, সন্দেশ, প্রীতম, অনিরুধ. রোলিন, সাহাল, সুনিল, জবি, উদান্ত।

তাজিকিস্তান - ইয়াতিমভ, দাভলাতমির, অ্যাস্রোরভ, নাজারভ, জালিলভ, পানশানবে, উমারবায়েভ, জুরাবোয়েভ, সামিয়েভ, বোবোয়েভ, রহিমভ।