18

বিগ বস ১৬-এর ঘরের থিম হিসেবে 'সার্কাস'বেছে নেওয়া হয়েছে। থিম অনুসারে,ওমং কুমার এবং তার স্ত্রী বনিতা বাড়ির অভ্যন্তরীণ এবং বাইরের জন্য একটি উজ্জ্বল এবং রঙিন প্যালেট বেছে নিয়েছিলেন। একটি সার্কাসের একাধিক খাঁটি উপাদান রয়েছে এই বাড়িতে। ডিজাইনারদের নিখুত হাতের কাজে একেবারে অন্য ধারা পেয়েছে এবারের বিবি হাউস। এক ঝলকে দেখলে কমিক বই থেকে সরাসরি টেনে আনা একটি পাতার মতো দেখা দেখাতেই পারে এই বাড়িকে। 

Subscribe to get breaking news alerts

28

'মৌত কা কুওয়া' জেল থেকে শুরু করে বাথরুমের পাগল আয়না এবং খাবার টেবিলের মতো ক্যারোসেল, বিগ বস ঘরের সবকিছুই থিম অনুযায়ী পরিকল্পনা করা হয়েছে। ডিজাইনাররা বিভিন্ন কোণে বেশ কয়েকটি খেলনা পশু পাখি রাখার জন্য একটি করে খোপ তৈরি করা আছে। 
38

বিগ বস ঘরের ঢোকার মুখের দরজাটি একটি জোকারের মুখ দিয়ে সজ্জিত - একটি সার্কাসের অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ উপাদান। ওয়াশরুমের ডিজাইন এই থিমে এক অন্য মাত্রা এসে দেয়। পুরো এলাকাটি চারটি অংশে বিভক্ত। একের পর এক রহস্য উন্মোচন করতে করতে অবশেষে রাজকীয় ডিজাইনের বাথরুমে পৌঁছন যায়। 
48

বিগ বস ঘরের অন্যতম আকর্ষণ হল বিশালকার বিলাসবহুল ক্যাপ্টেনের আস্তানা। ঘরটি একটি জ্যাকুজি সহ সব রকমের বিলাসিতার সামগ্রী দিয়ে তৈরি। বাড়ির ক্যাপ্টেন হওয়ার এটি একটি বড় সুবিধা। তাছাড়াও একাধিক সুবিধা উপভোগ করে ক্যাপ্টেন।

58

বাড়ির সম্পর্কে কথা বলতে গিয়ে, ওমং কুমার বলেছে যে, “বাড়িটি মোট ৯৮টি ক্যামেরা দিয়ে ঘেরা যা বাড়ির সদস্যের প্রতি মুহূর্তের প্রতিটি কার্যকলাপ রেকর্ড করবে। বাগানটিও একেবারে অন্য রকমভাবে প্রতিযোগীদের সুবিধার্থে ডিজাইন করা হয়েছে এবং এতে দুটি 'চিলিং জোন' এবং একটি স্নেকি সুইমিং পুল রয়েছে।

68

বাড়িতে এই মুহূর্তে চারটি বেডরুম আছে, যার প্রত্যেকটি আলাদা থিম দিয়ে ডিজাইন করা হয়েছে - আগুন, ভিনটেজ, কালো এবং সাদা এবং কার্ড। বাড়ির নকশা ও ডিজাইন দেখে একে এক কথায় 'লালা ল্যান্ড' বলাই যায়।

78

বিলাসবহুল শোয়ার ঘর, বাড়ির অত্যাশ্চর্য ক্লাউন এন্ট্রান্স এবং স্যাঙ্কি সিট-আউট এলাকা ছাড়াও বাড়ির বসার ঘরটিও আপনাকে মুগ্ধ করবে। এখানে একটি বিশালাকার লাল-সাদা সোফা আপনার মন জয় করতে বাধ্য।

88

বাড়ির আরেকটি গুরুত্বপূর্ণ অংশ, যা যাবতীয় গোপনীয়তার উন্মোচনের সাক্ষী হয়, তা হল স্বীকারোক্তি রুম। এই ঘর ডিজাইনে  ডিজাইনাররা এর ভুল হতে পারে না। রিংমাস্টার হিসাবে বিগ বসের সাথে,স্বীকারোক্তি রুমটিকে একটি গাড়ির মতো ডিজাইন করা হয়েছে। সঙ্গে থাকছে চোখ ধাধানো আলোকসজ্জা