প্রধানমন্ত্রী হওয়ার পর থেকে ডিজিটাল ইন্ডিয়া গড়ার জন্য বারবার তিনি আহ্বান জানিয়েছেন। তবে ২০২০ সালের পরীক্ষা পে চর্চায় কিন্তু প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর মুখে একটু অন্যরকম সুরই শোনা গেল। প্রতিদিন অন্তত একটি ঘন্টা যন্ত্রের থেকে দূরে থাকার পরামর্শ দিলেন তিনি। নাহলে মানবিক গুণাবলী আর বাঁচবে না। পড়াশোনায় মনোসংয়োগ করাও দুরূহ হয়ে পড়বে।

তবে তাই বলে প্রযুক্তিকে দূরে সরিয়ে রাখলেও চলবে না। কারণ, প্রযুক্তি প্রতিদিন দ্রুত পরিবর্তিত হচ্ছে। সেই ট্রেন্ডগুলির সঙ্গে নিজেকে আপডেট করাটা আজকের দিনে অপরিহার্য। তাই প্রযুক্তিকে ভয় পাওয়াটা মোটেই কাজের কথা নয়। বরং প্রযুক্তিকে বন্ধু বানাতে হবে। দেখতে হবে যেন মানুষ প্রযুক্তির নয়, বরং প্রযুক্তি মানুষের কাজে লাগে। আর তার জন্যই তাঁর পরামর্শ প্রতিদিন অন্তত একটি ঘন্টা প্রযুক্তি-মুক্ত থাকতে হবে।

তিনি বলেন, আজকাল দেখা যায় পরিবারের চারজন এক জায়গায় থাকলেও, তাঁদের নিজেদের মধ্যে কথাবার্তা হয় না। বরং তাঁরা সেই সময় নিজেদের ফোনে ব্যস্ত থাকে। স্মার্টফোন আমাদের প্রতিদিনের অনেকটা সময় খেয়ে নেয়। তাই শুধু শিক্ষার্থীদের নয়, তাদের অভিভাবকদেরও কিছুটা সময় প্রযুক্তিমুক্ত থাকা উচিত। পারলে দিনের একটা নির্দিষ্ট সময় অথবা বাড়ির একটি নির্দিষ্ট জায়গা প্রযুক্তিমুক্ত রাখা উচিত।