কন্নরভূমেও গেরুয়া ঝড়। এদিন কর্নাটকের ১৫টি বিধানসভা আসনের উপনির্বাচনের ভোট গণনা চলছে। ফলাফলের ট্রেন্ডে দেখা যাচ্ছে বিজেপি এগিয়ে রয়েছে ১৫টি আসনের ১২টিতে। ২০১৮ সালের বিধানসভা ভোটের সময় এই ১৫টি আসনের একটিও বিজেপি শিবিরে ছিল না। এই পরিবর্তন এল বিদ্রোহী বিধায়কদের হাত ধরেই। তবে গেরুয়া শিবিরের এই তুমুল সাফল্যের মধ্যেও একটি কাঁটা বিঁধছে।

চলতি বছরের জুলাই মাসে কর্নাটক বিধানসভায় অযোগ্য বলে ঘোষণা করা হয়েছিল মোট ১৭জন কংগ্রেস-জেডিএস বিধায়ককে। এঁরা প্রত্যেকেই কর্নাটকের কংগ্রেস-জেডিএস সরকারের উপর থেকে সমর্থন প্রত্যাহার করে নিয়েছিলেন। যার জেরে পতন ঘটেছিল কুমারস্বামী সরকারের।

এই ১৭টি আসনের ১৫টিতে ভোট হয়েছে। আর এই আসনগুলিতে বিজেপি প্রার্থী করেছিল ১৩জন বিদ্রোহী বিধায়ককে। এই ১৩ জন ২০১৮ সালের ভোটে কংগ্রেস ও জেডিএস-এর টিকিটে যে যে আসন থেকে জয়ী হয়েছিলেন, সেই আসনগুলি থেকেই তাঁদেরকে টিকিট দিয়েছিল বিজেপি। যা নিয়ে দলের অন্দরে প্রবল ক্ষোভ-ও ছিল। কিন্তু, বিজেপির সেই সিদ্ধান্ত যে কাজে দিয়েছে তা ভোটের ফলাফলের ট্রেন্ডেই স্পষ্ট।

বিদ্রোহী ১৩ বিধায়কের মধ্যে ১২ জন এই মুহুর্তে জয়ের একেবারে মুখে দাঁড়িয়ে রয়েছেন। তা ছাড়াও আরও ২টি আসনে এগিয়ে রয়েছেন বিজেপি প্রার্থীরা। এমনকী, কে আর পিট আসনে যেখানে এখনও পর্যন্ত কোনওদিন বিজেপি কখনও দাঁত ফোটাতে পারেনি, সেই আসনেও বিজেপি প্রার্থী নারায়ণ গৌড়া এগিয়ে গিয়েছেন কংগ্রেস প্রার্থীর থেকে। তিনি শেষ পর্যন্ত জয় পেলে এই প্রথম ভোক্কালিগা-র মতো অবিজেপি ঘাঁটিতে পা রাখবে গেরুয়া শিবির।

তবে বিদ্রোহীদের হাত ধরে এই দারুণ সাফল্যের মধ্য়ে বিজেপি-র জন্য একটি কাঁটা-ও রয়েছে। এখানেও এক বিদ্রোহী রয়েছেন। তিনি অবশ্য গেরুয়া শিবিরের বিদ্রোহী। বিজেপি সাংসদ বি এন বাচেগৌড়ার পুত্র শরৎ বাচেগৌড়া। হোসকোটে আসনে বিজেপি কংগ্রেস থেকে আসা এমটিবি নাগরাজ-কে প্রার্থী করেছিল। এই সিদ্ধান্তের বিরোধিতা করেছিলেন শরৎ। তার জন্য দল থেকে বহিষ্কৃতও হন। তিনি নির্দল হিসেবে দাঁড়িয়েছিলেন। আপাতত  নাগরাজের থেকে তিনি অনেকটাই এগিয়ে রয়েছেন।

তবে এখন থেকেই জল্পনা শুরু হয়েছে এই ১২ বিদ্রোহী, যাঁরা বিজেপি-কে বড় জয় এনে দিতে চলেছেন, তাঁরা কি মন্ত্রিত্ব পাবেন? কর্নাটকের মন্ত্রী তথা বিশিষ্ট বিজেপি নেতা অশোক জানিয়েছেন, দলের পক্ষ থেকে এখনও কিছু ঠিক করা হয়নি। তবে বিজেপিকে সরকার গঠনের সুযোগ করে দেওয়া এই ১২ জন বিদ্রোহী পুরস্কৃত যে হবেন সেটা নিশ্চিত।