অগ্রহায়ণ সংক্রান্তি ও পৌষের শুরু, এই সময় অত্যন্ত শুভ বলে মনে করা হয়। এই শুভ সময়ে বিশেষ কিছু নিয়ম পালন করলে সহজেই কাটিয়ে উঠতে পারবেন আর্থিক সমস্যা। বিশেষ এই উপাচার পালন করলে মনে করা হয় সারা জীবনের মত আর্থিক সমস্যা কাটিয়ে উঠতে পারবেন আপনি। মনে করা হয় বিশেষ পদ্ধতিতে এই শুভ দিনে মা লক্ষ্মীর অর্চণা করলে চির জীবনের মত মা লক্ষ্মী আপনার ঘরে আধিষ্ঠান করবে। তবে চলুন জেনে নেওয়া যাক পয়লা পৌষ কোন উপায়ে কাটাবে আপনার অর্থ ভাগ্য।

আরও পড়ুন- আগামী বছরে কেমন হবে কন্যা রাশির কর্মজীবন, জেনে নিন

এই শুভ ক্ষণে মা লক্ষ্মীর বিশেষ পুজোর জন্য প্রয়োজন কয়েকটি কড়ি, কয়েকটি গোটা সুপুরি, ১ টাকার কয়েন, কয়েকটি হরিতকি আর কয়েকটা কাঁচি হলুদ। এছাড়া ফুল, দুর্বা ও আম্র পল্লব সঙ্গে রাখতে হবে। হিন্দু সনাতন ধর্মে প্রায় অধিকাংশ বাড়িতেই মা লক্ষ্মীর পুজো করা হয়। বিশেষ এই দিনে স্নান সেরে মা লক্ষ্মীর পুজো করতে হবে। সাধারণ পুজোর নিয়ম অনুযায়ী লক্ষ্মীর ঘট স্থাপন করে তাতে গঙ্গাজল ভরে তাতে ১টি হরিতকি, ১টি কড়ি, ১টি কাঁচি হলুদ, ১ টি গোটা সুপুরি রাখুন। ঘটের গায়ে সিঁদুর দিয়ে স্বস্তিক চিহ্ন এঁকে নিন। ঘটের উপরে আমপল্লব নিয়ে উপরে একটি হরতকি রাখুন। প্রতিটি আমের পাতায় সিঁদুরের ফোঁটা দিয়ে দিন। পুজোয় ফল বা মিষ্টি দিয়ে নৈবেদ্য সাজিয়ে নিয়ে নিন। ধূপ ধুনো জ্বালিয়ে নিন। 

আরও পড়ুন- তুলা রাশির কতটা উন্নতি হবে এই মাসে, দেখে নিন

এই মঙ্গল ঘট স্থাপনের পর, আপনি যে ভাবে পুজো করেন সেইভাবে পুজো সেরে ফেলুন। এরপর মঙ্গলঘট স্থাপনের পর আপনাকে উচ্চারণ করতে হবে বিশেষ মন্ত্র। 'ওম শ্রীং লক্ষ্মীদেব্যৈ নমঃ' এই মন্ত্র ১০৮ বার উচ্চারণ করে আপনার মনোষ্কামনা জানান মা লক্ষ্মীকে। পুজো শেষে ঘট তুলে ফেলার পর ঘটের জল কোনও পুকুর বা জলাশয়ে ফেলে দেবেন, যেখানে সেখানে ফেলবেন না। সঠিকভাবে নিয়ম মেনে উপাচারগুলি মেনে চললেই আপনি ফল পাবেন হাতে নাতে।