বাড়ির ভেতর একফালি জমিতে বাগান করতে কার না ভাল লাগে। সেখানে নিশ্চয় আপনার সাধের অনেক গাছই রয়েছে। কিন্তু জানেন কী এমন কিছু গাছ রয়েছে যা, আদতে ইতিবাচক শক্তির আধার। আর এইসব গাছ লাগালে আপনার গৃহে সর্বদা শান্তি বিরাজ করবে এবং সেইসঙ্গে কেটে যাবে অশুভ শক্তির কালে ছায়া। জেনে নিন কোন কোন গাছ পুঁতলে সৌভাগ্য সর্বদা আপনার সঙ্গে থাকবে। 

১) মানি প্ল্যান্ট- নাম থেকেই প্রকাশ পাচ্ছে এই গাছের গুণের কথা। এই গাছ বাড়িতে থাকলে আর্থিক দিক থেকে আপনার সৌভাগ্য ফিরবে। বাড়ির মধ্যে দক্ষিণ দিকে এই গাছ থাকা শুভ। তবে খুব ভাল হয়, যদি শোওয়ার ঘরে এই গাছ লাগালে খুব ভাল ফল পাওয়া যায়। 

২) নারকেল গাছ- বাস্তু মতে নারকেল গাছ বাড়িতে থাকা শুভ। এই গাছের উচ্চতা আপনার সুসময়কে দীর্ঘায়িত করে। এই গাছ অর্থের আগমন সুনিশ্চিত করে। শুধু তাই নয় জীবন থেকে দুঃখের সময়কে কমিয়ে আনতে সাহায্য করে। 
                
৩) নিম গাছ- বলা হয় যে নিম গাছ আপনার জীবন থেকে যাবতীয় নেতিবাচক চিন্তা দূর করতে সাহায্য করে। এও বলা হয় যে, নিমের হাওয়া বাড়ির পক্ষে অত্যন্ত শুভ। ভাল ফল পেতে বাড়ির উত্তর-পশ্চিম দিকেই একমাত্র নিম গাছ লাগান, নইলে কিন্তু ফল ভাল হবে না।

৪)  কলাগাছ-  কলাগাছ বাড়িতে থাকা খুবই শুভ। বাস্তুশাস্ত্র বলা হয়েছে, কলাগাছ যে বাড়িতে থাকে, সেই বাড়ির মানুষদের অর্থের অভাব কোনওদিনও দেখা দেয় না। বাড়িতে কলাগাছ পুঁতলে বাড়ির মানুষের শরীর খুবই ভাল থাকে। 

৫) বাঁশ গাছ- বাস্তুশাস্ত্রে বলা হয় যে বাঁশগাছ অত্যন্ত শুভ। বাড়ির আশেপাশে বাঁশগাছ থাকলে তা মানুষের গৃহের মানুষদের সৌভাগ্য বাড়িয়ে দেয়। শুধু তাই নয়, বাড়িতে বাঁশ গাছ থাকা মানে তা সুখী গার্হস্থ্যের লক্ষণ। 

রাতে এই স্বপ্নগুলি দেখেন, হতে পারে বিপদ, বয়ে আনতে পারে মৃত্যুযোগও

৬) পদ্মফুল গাছ- মা লক্ষী যেহেতু পদ্মফুলের ওপর বিরাজ করেন, তাই পদ্মফুল খুবই শুভ বলে মনে করা হয়। বলা হয় যে, বাড়িতে পদ্মফুল গাছ থাকলে মা লক্ষী স্বয়ং সেই গৃহে বিরাজ করেন। শুধু তাই নয়, এই গাছ সংসারে শান্তিও বয়ে আনে। তাই বাড়িতে ছোটখাটো জলাশয় থাকলে সেখানে লাগান পদ্মগাছ।