এই বছর ১৪ নভেম্বর শনিবার দীপাবলির উৎসব উদযাপিত হবে। ধনতেরাসের দিন থেকে শুরু হয়ে ভাইফোঁটায় শেষ হয় এই উৎসব। প্রথমে ধনতেরাস, দীপাবলি, কালী পুজো, বাংলার বাইরে গোবর্ধন পুজা এবং ভাইফোঁটা আসে। তবে বিশেষজ্ঞদের মতে এই বছরের দীপাবলীতে ৪৯৯ বছর পরে তিনটি গ্রহের একটি বিরল যোগ তৈরি হচ্ছে। ২০২০ সালের এর আগে, ১৫২১ সালে বৃহস্পতি, শুক্র এবং শনি গ্রহের এই যোগ গঠিত হয়েছিল। বৃহস্পতি ও শনি অর্থনৈতিক অবস্থাকে শক্তিশালী করে বলে মনে করা হয়। তাই দিওয়ালি উপলক্ষে লক্ষ্মী-গণেশ পুজোর বিশেষ তাত্পর্য রয়েছে। 

আরও পড়ুন- 'যেই মহিলার মধ্যে রয়েছে এই ৪ গুণ তিনিই প্রকৃত সফল নারী', চাণক্য নীতি

দীপাবলিতে লক্ষ্মী পুজোর স্থান ভেদে বিশেষ গুরুত্ব রয়েছে। পাশাপাশি ২০২০ সালের এই কাকতালীয় যোগ দেশের অর্থনীতির উপর মারাত্মক প্রভাব পড়বে বলে মনে করা হচ্ছে। ৪৯৯ বছর পরে এই যোগ দীপাবলির সময়ে এক গুরুত্বপূর্ণ প্রভাব পড়বে। এই দিনে সকালে স্নান করা এবং সন্ধ্যায় দুঃস্থদের দানে বিশেষ গুরুত্ব রয়েছে। বিশ্বাস করা হয় যে অমাবস্যা রাতে দেবী লক্ষ্মী পৃথিবীতে আসেন।

আরও পড়ুন- কার্তিক মাস কেমন প্রভাব ফেলবে মীন রাশির উপর, দেখে নিন .

ধনতেরাসের উত্সবটি দিওয়ালির একদিন আগে পালিত হয়। হিন্দু ধর্মে ধনতেরাসে নতুন জিনিস কেনা শুভ বলে বিবেচিত হয়। ধনতেরাসের শুভ সময়টি সন্ধ্যা ৬ টা বেজে ১ মিনিটে শুরু হয়ে রাত ৮ টা বেজে ৩৩ মিনিটে শেষ হবে। দীপাবলির পরেই হয় গোবর্ধন পুজো উদযাপন করার হয়।