বাস্তুশাস্ত্র, এই বাস্তু শব্দটি এসেছে বস্তু থেকে। বাস্তু বলতে সব কিছুকেই বুঝায়- তা একটি স্থান হতে পারে- কিংবা একটা বাড়িও হতে পারে। বাস্তুশাস্ত্র মতে, রঙ যেমন ব্যক্তিত্বে প্রভাব সৃষ্টি করে, ঠিক একই ভাবে অর্থভাগ্যও নির্ভর করে রঙের উপর। তাই জ্যোতিষশাস্ত্র মতে পার্সের রঙের উপর আপনার অর্থভাগ্য নির্ভরশীল। আপনার হাতে অর্থের পরিমান কেমন থাকবে তা কিছুটা নির্ভর করে আপনার ব্যবহার করা পার্সের রঙের উপর। তাই জেনে নিন কোন রঙ এর পার্স ব্যবহার করলে আপনার অর্থ ভাগ্য উন্নত হবে।

বাস্তুমতে মনে করা হয় ধূসর, গোলাপী, হলুদ, সাদা ও কালো রঙ এর পার্স অত্যন্ত শুভ হয়। পার্স অর্থ স্থান হিসেবে এই রঙগুলি শুভ শক্তিকে আকর্ষিত করে। পার্স বা ওয়ালেটে রঙ লাল হলে আপনার আর্থিক সমস্যা দেখা দেওয়ার সম্ভাবনা থাকে। কারণ আগুনের লাল আঁচে যেমন সমস্ত কিছু পুড়ে ছাড়খার হয়ে যায়। ঠিক সেভাবেই আপনার আর্থিক ভাগ্যও নষ্ট হওয়ার সম্ভাবনা থাকে। তাই লাল রঙ এর পার্স এড়িয়ে চলুন। এই আপনার পার্সের রঙ কেমন তার উপর নির্ভর করছে আপনার অর্থভাগ্য। তাই জেনে নেওয়া যাক বাস্তুমতে আপনার কোন রঙ এর মানি পার্স ব্যবহার করা উচিত।

বাস্তুমতে, হলুদ রঙ সৌভাগ্যের প্রতীক। তাই এই রঙের ওয়ালেট ব্যবহার করলে সৌভাগ্য আপনার সহায় হবে সেই সঙ্গে আর্থিক উন্নতিও বৃদ্ধি পাবে। আবার অনেকেই কালো রঙ-কে অত্যন্ত অশুভ বলে মনে করে করেন। বাস্তু মতে কালো রঙ সমস্ত সৌর শক্তিকে শোষণ করার ক্ষমতা রাখে। এই রঙের মধ্যে নিহিত থাকে সূর্যের তেজ। যদি আর্থিক সমস্যায় জেরবার হয়ে রয়েছেন তবে অবশ্যই কালো রঙের ওয়ালেট ব্যবহার করুন। গোলাপী রং-ও অত্যন্ত শুভ বলে মনে করা হয় বাস্তু মতে। এতে আর্থিক সৌভাগ্যকে দ্বিগুণ করে তোলে। এরজন্য আপনি যে কোনও শেডের গোলাপী রঙ ব্যবহার করতে পারেন।

ওয়ালেটের ক্ষেত্রে দূরে থাকুন নীল রঙ থেকে। আর্থিক উন্নতির জন্য একই রকম ক্ষতিকর নীল রঙ। ফেংশুই মতে নীল রঙ ডুবে যাওয়ার ইঙ্গিতবাহী। তাই এই রঙের ওয়ালেট ব্যবহার করলে আপনার ভরাডুবি হওয়ার আশঙ্কা থাকে বলে মনে করে বাস্তুশাস্ত্র।  তবে সোনালী রঙ হল পার্সের মধ্যে সবচেয়ে শুভ। অর্থভাগ্যের উন্নতি করতে এই রঙ প্রভাব বিস্তার করে। দ্রুত আর্থিক উন্নতির জন্য সোনালী রঙের পার্স ব্যবহার করুন। পুরো সোনালী রঙ না হলেও পার্সে যেন সোনালী রঙ এর টাচ থাকে।