Asianet News BanglaAsianet News Bangla

কড়াই আর তাওয়া ব্যবহার করার সময় এইগুলি মাথায় রাখুন, তাহলে কৃপা পাবেন শনি-রাহু-কেতুর


রান্নাঘর গোছানো আর রান্নার কাজে ব্যবহৃত বাসনপত্রগুলি যাতে বাস্তু মেনে ব্যবহার করা হয় সেদিকে গুরুত্বদেওয়া জরুরি। আজ আপনাদের এমন একটি টিপস দেব রান্নাঘরের বাস্তু নিয়ে যা মেনে চললে কখনই কুপিত হবেন না রাহু, কেতু আর শনি। I

Never turn  pan and fry pan upside down, Shani Rahu and Ketu get angry bsm
Author
Kolkata, First Published Jun 10, 2022, 7:36 PM IST

বাস্তু মনে সর্বদা বাড়ি সাজানো উচিৎ। আর সেক্ষেত্র সবথেকে বেশি মন দেওয়া উচিৎ রান্নাঘরে। কারণ গৃহস্থের কল্যাণ আর অকল্যাণের অনেকটই নির্ভর করে রান্নাঘরের ওপর। তাই রান্নাঘর গোছানো আর রান্নার কাজে ব্যবহৃত বাসনপত্রগুলি যাতে বাস্তু মেনে ব্যবহার করা হয় সেদিকে গুরুত্বদেওয়া জরুরি। আজ আপনাদের এমন একটি টিপস দেব রান্নাঘরের বাস্তু নিয়ে যা মেনে চললে কখনই কুপিত হবেন না রাহু, কেতু আর শনি। 

জ্যোতিষশাস্ত্র মতে এই তিনটি গ্রহের ফেরে মানুষকে অনেত সময় বিড়ম্বনায় পড়তে হয়। তাই জ্যোতিষ বিশ্বাসীরা সকলেই চায় তিন দেবতাকে বশে রাখতে। তাদের কৃপা দৃষ্টি পেতে। আর এই তিন শক্তির কৃপা দৃষ্টি পাওয়ার জন্য এই সহজ কাজটি করতেই পরেন আপনার রান্নাঘরে। মহিলাদের অধিকাংশ সময়ই কাটে রান্নাঘরে। তাই এই তিন শক্তি কুপিতে হলে পরিবারের পাশাপাশি তাঁদের ওপরও অমঙ্গলের ছায়া নেমে আসতে পারে। সেই জন্য প্রথম থেকেই সাবধান হওয়া জরুরি।  এবার একনজরে দেখে নিন রান্নাঘরে কী কী করবেন  আর করবেন না। 

তাওয়া- রুটি বা পরোটা করার পর কখনই গরম তাওয়ায় জল দেবেন না। আগে ভালোভাবে তাওয়া ঠান্ডা হতে দিন। তারপরই তাতে জল দিয়ে ভিজিয়ে রাখবেন। গরম তাওয়ায় জল দিলে কুপিত হন শনিদেব। তাতে পরিবারে অশান্তি লেগেই থাকে। আর পরিবারে অর্থাভাব দেখা দেয়। রুটি বা পরোটা করার পরে রোজ তাওয়া পরিষ্কার করে রাখবেন। 

কড়াই - যে কড়াইতে রান্না করছেন সেই কড়াই ভুলেও সেই অবস্থায় গ্যাসের ওপর রেখে দেবেন না।  আপনার এই অভ্যাস বা গাফিলতি অচিরেই আপনার সংসারে ডেকে আনবে বিপদ। রান্নার পর গ্যাসের ওপর কড়াই রেখে দিলে পরিবারের রাহু আর কেতু তুষ্ট হন। তাতে বাড়ির মধ্যে অশুভ শক্তির বাস শুরু হয়ে যায়। কড়াই ধোয়ার পর কখনই সোজা করে রাখবেন না। তাতে অশুভ শক্তির প্রভাব বাড়তে পারে। 

রুটি- পরিবারের সদস্যদের জন্য রুটি করার সময় একটি রুটি বেশি করুন। আর সেটি নিজের হাতে গরু বা কাককে খাওয়াতে পারেন। তাহলে শনি দেবতার কৃপা সহজে পাওয়া যায়। 

নুন- রান্নার আগে কড়াই বা তাওয়া গরম হলে একটু নুন ফেলে দিন তাতে। তাহলে তুষ্ট হবেন রাহু আর কেতু। পরিবারে কখনই অর্থের অভাব হবে না। 

অগোচরে রাখুন - এছড়াও তাওয়া ও কড়াই রান্নার পরে ফেলে রাখবেন না। দুটি বাসনই ধোয়ার পরে এমনভাবে রাখুন যাতে বাইরের লোক দেখতে না পায়। বাইরের লোক কড়াই বা তাওয়া হাঁড়ি দেখাটা খুবই অশুভ বলে মনে করা হয় জ্যোতিষশাস্ত্রে। একটা সময় রান্নাঘর দর্শন বাইরের মানুষের কাছে দেখান হত না।  
 

Follow Us:
Download App:
  • android
  • ios