Asianet News BanglaAsianet News Bangla

সাবধান! ১২ অগাস্ট থেকে শুরু হচ্ছে পঞ্চক, অশুভ শক্তির প্রভাব এড়াতে এগুলি করুন পাঁচ দিন


অগাস্ট মাসটি উৎসবে ভরা। ২ অগাস্ট নাগ পঞ্চমী দিয়ে শুরু হয়েছে। তারপর একাধিক ব্রত ও ধর্মীয় অনুষ্ঠান কাটিয়ে ১২ অগাস্ট অর্থাৎ শুক্রবার থেকে শুরু হচ্ছে পঞ্চক। জ্যোতিষশাস্ত্র অনুসারে, বেশ কয়েকটি গ্রহের গতিবিধি রয়েছে যার ফলস্বরূপ মানুষের জীবনে কিছু অদ্ভুত পরিবর্তন।

Panchak August 2022 Starting August 12, know what not to do these five days BSM
Author
Kolkata, First Published Aug 11, 2022, 10:17 PM IST

অগাস্ট মাসটি উৎসবে ভরা। ২ অগাস্ট নাগ পঞ্চমী দিয়ে শুরু হয়েছে। তারপর একাধিক ব্রত ও ধর্মীয় অনুষ্ঠান কাটিয়ে ১২ অগাস্ট অর্থাৎ শুক্রবার থেকে শুরু হচ্ছে পঞ্চক। জ্যোতিষশাস্ত্র অনুসারে, বেশ কয়েকটি গ্রহের গতিবিধি রয়েছে যার ফলস্বরূপ মানুষের জীবনে কিছু অদ্ভুত পরিবর্তন। কখনও কখনও এই পরিবর্তনগুলি ইতিবাচক এবং কখনও কখনও নেতিবাচক হয়। এটা বিশ্বাস করা হয় জ্যোতিষশাস্ত্রে যে একএটা সময় একেকজন মানুষের জন্য শুভ হয়। আর সেই একই সময়টা অন্যদের জন্য সতর্ক থাকা জরুরি। জ্যোতিষ অনুযায়ী পঞ্চক হল মাসের অশুভ দিন। আর সেই সময়টা একাধিক ক্ষতি হতে পারে। তাই এই পাঁচ দিন সাবধানে আর সতর্ক থাকা জরুরি। 


পঞ্চকের সময়- 
বৈদিক জ্যোতিষশাস্ত্রে, যে সময়টি কুম্ভ এবং মীন রাশিতে চাঁদ থাকে তাকে পঞ্চক বলা হয়। পঞ্চক পাঁচ রকমের। রোগ পঞ্চক, অগ্নি পঞ্চক, রাজ পঞ্চক, চোর পঞ্চক এবং মৃত্যু পঞ্চক। বলা হয় এই পাঁচ দিনে কোনো শুভ কাজ করা উচিত নয়।

পঞ্চসের তিথি আর সময়- 
১১ অগাস্ট বৃহস্পতিবার রাখি বন্ধন। এই শুভ মুহূর্ত কেটে গেলেই শুরু হবে পঞ্চক। অর্থাৎ ১২ অগাস্ট পুর্ণিমা শেষ হওয়ার পরই পঞ্চক লাগবে। সময়টা হল শুক্রবার দুপুর ২টো ৪৯ মিনিট থেকে শুরু হবে। আর শেষ হবে ১৬ অগাস্ট মঙ্গলবার রাত ৯টা ০৭ মিনিটে। শুক্রবার চোর পঞ্চক হবে। 


জ্যোতিষশাস্ত্রে, এটি পরামর্শ দেওয়া হয় যে কোনও শুভ কাজ শুরু করার আগে লোকেদের প্রথমে পঞ্চক সন্ধান করা উচিত এবং সেই তারিখগুলি এড়িয়ে চলা উচিত কারণ এটি তাদের পরিকল্পনাগুলি উল্টে দিতে পারে। চোর পঞ্চকে অশুভ প্রভাব এড়াতে বেশ কিছু কাজ করতে পারেন। সেগুলি হলঃ
কোনো কাঠের আসবাবপত্র কিনবেন না বা কাঠের তৈরি জিনিস ঘরে আনবেন না।
কাঠ কেনার আগে মানুষের উচিত দেবী গায়ত্রীকে উৎসর্গ করে হবন করা।
পঞ্চকের সময় বাড়ির ছাদ তৈরি হয় না।
পঞ্চকের সময় দক্ষিণ দিকে ভ্রমণ অশুভ বলে মনে করা হয়।
এই সময়ে কেউ মারা গেলে ব্রাহ্মণকে জিজ্ঞাসা করলেই তার শেষকৃত্য করা হয়। এই সময়ের মধ্যে পরিবারে পাঁচজনের মৃত্যুর সম্ভাবনা রয়েছে। সেই কারণে পরিবারের অন্যান্য সদস্যদের রক্ষা করার জন্য পুরোহিতরা বিভিন্ন পদ্ধতিতে শেষকৃত্য করে থাকেন। 

Follow Us:
Download App:
  • android
  • ios