কৃষ্ণপক্ষের চতুর্থীর তিথি সংক্ষতি চতুর্থী তিথি নামেও পরিচিত। এই দিনে গণেশের জন্য উপবাস করা হয়। বুধবার ও চতুর্থীর যোগে জ্যোতিষশাস্ত্রের মতে অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। বুধ গ্রহের পাশাপাশি গণেশ এর বিশেষ উপাসনা করা উচিত এদিনে। গণেশ পুজোয় ঈশ্বরের ১২ মন্ত্র জপ করুন। জীবনের যাবতীয় জটিল সমস্যা দূর হবে সহজেই। 

আরও পড়ুন- আপনার হাতের রেখায় কি এই চিহ্ন রয়েছে, তবে সফলতা আপনার নিত্য সঙ্গী

বুধবার গণেশের পুজো করা হয়। কথিত আছে যে এই তিথিতে গণেশের উপাসনা করলে সমস্ত দুর্ভোগের অবসান ঘটে। তাই শাস্ত্র মতে, যে কোনও শুভ কাজ করার আগে গণেশের পুজো করা দরকার। ভগবান শিব এবং ভগবান পার্বতীর ছোট পুত্র গণেশের বিঘ্নহরত, মঙ্গলমূর্তি, গজানন, গণপতি, গণেশ নামে পুজো এবং মহাদেব-এর ছোট পুত্র গণেশের উপাসনা ভক্তরা পূর্ণ করেন। তাদের দুর্ভোগও দূর হয়। 

আরও পড়ুন- বুধবারে ৫ রাশির আর্থিক উন্নতির যোগ রয়েছে, দেখে নিন আপনার রাশিফল

সংক্ষতি চতুর্থীতে উপবাস ও উপাসনা ভক্তের ইচ্ছা পূরণ করে। এই ব্রত বিশেষত মায়েদের দ্বারা তাদের সন্তানের উন্নতির জন্য পালন করা হয়। ভালচন্দ্র সংক্ষতি চতুর্থী শুভ সময় ৩১ মার্চ বুধবার। চতুর্থীর তিথি শুরু হবে দুপুর ২ টো বেজে ৬ মিনিটে এবং শেষ হবে ১ এপ্রিল সকাল ১০ টা বেজে ৫৯ মিনিটে।

সংক্ষতি চতুর্থী পুজো বিধি- 

সংক্ষতি বা সংকষ্টি চতুর্থীর সকালে উঠে ভগবান গণেশ-এর পুজোর আয়োজন করুন। এরপর গণেশ কে স্নান করিয়ে পুজোর স্থান পরিষ্কার করুন। ভগবান গণেশের উপাসনা করুন এবং লাড্ডু বা যে কোনও মিষ্টি দিয়ে পুজোর নৈবেদ্য সাজিয়ে দিন। সন্ধ্যায় চাঁদ ওঠার পর শুরু হয় এই ব্রত পালন। 

 

 

গণেশের মন্ত্র পাঠ-

গণেশকে দূর্বা উত্সর্গ করে এই মন্ত্রগুলি জপ করুন। ওম গণধিপাতায়ে নম:, ওম উমপুত্রায়া নম:, ওম বিঘ্নাসনায়ায়া নম: ওম বিনায়াকায়া নম:, ওম ইশপুত্রায়া নম:, ওম সর্বদাসপ্রদায় নম:, ওম একদন্তায়ায় নম: ওম ইববক্ত্রয় নম: