বলি অভিনেতা সোনু সুদ। তার কথা নতুন করে আর কোনও বলার অপেক্ষা রাখে না। তিনিই যেন বাস্তবের নায়ক। মাত্র ৫৫০০ টাকা নিয়ে মুম্বইতে আসা ছেলেটিই যেন আজ পরিযায়ী শ্রমিকদের ভগবানের দূত। নিজের যথাসাধ্য সাহায্যের হাত বাড়িয়ে  পরিযায়ী শ্রমিকদের পাশে দাঁড়িয়ে একের পর এক নজিরবিহীন কাজ করেই চলেছেন সোনু। তার একটাই লক্ষ্য, পরিযায়ী শ্রমিকরা যাতে ঠিকমতো নিজ নিজ বাড়িতে পৌঁছাতে পারে। ভিন রাজ্যের শ্রমিকদের বাড়ি ফেরানোর জন্য যা যা করণীয় সবটাই একাহাতে সামলাচ্ছেন অভিনেতা। ইতিমধ্যেই লকডাউনের মধ্যে পরিযায়ী শ্রমিকদের বাড়ি ফিরিয়ে দিয়েছেন  অভিনেতা।

আরও পড়ুন-'অন্তরঙ্গ দৃশ্যে ঐশ্বর্যকে স্পর্শ করতে হাত পা কাঁপত', স্বীকারোক্তি রণবীরের...


লকডাউনে আনলক-২ চালু হয়েছে। এবার বাংলার এক শ্রমিকের পাশে দাঁড়ালেন বলি অভিনেতা। মুম্বাইয়ের গোরেগাঁওয়ে আটকে থাকা বাংলার এক শ্রমিকের পাশেই দাঁড়ালেন সোনু। পশ্চিমবঙ্গের বাসিন্দা সুভাষ মহাপাত্র নামে ওই শ্রমিক টুইটারে একটি ভিডিও পোস্ট করেন। ভিডিওতেই নিজের সমস্যার কথা তুলে ধরেছেন তিনি। আর সেই সমস্যা দেখেই শ্রমিকের পাশে তড়িঘড়ি দাঁড়িয়েছেন সোনুর।  দেখে নিন সোনুর টুইটটি,


 স্পেশ্যাল শ্রমিক ট্রেন চালু হলেও কাজ চালিয়ে যাচ্ছেন সোনু। ভিডিওটিতে সুভাষ জানিয়েছিলেন, 'আমি গায় গেয়ে, গাড় চালিয়ে সংসার চালাই। তবে লকডাউনে প্রায় ৪ মাস ধরে কাজ চলে গিয়েছে।  বর্তমানে আমি আমার গ্রামের বাড়িতে ফিরতে চাই। মা ভীষণই অসুস্থ।মৃত্যুর সঙ্গে লড়াই করছেন তিনি। যদি আমাকে আমার বাড়িতে পৌঁছে দেওয়া হয় তাহলে খুবই উপকৃত হব। এর আগেও টুইট করেছিলাম, তবে তার কোনও উত্তর পাইনি। আপনি তো অনেককেই সাহায্য করেছেন, আমাকে এই সাহায্যটুকু করলে খুবই উপকৃত হব'।  সুভাষ মহামাত্রর এই টুইট নজরে আসতেই  তার উত্তর দিয়েছেন অভিনেতা। সোনু টুইটে জানিয়েছেন, 'মাকে জানিয়ে দিন যে আপনি খুব শীঘ্রই বাড়ি ফিরছেন। আপনার মায়ের দীর্ঘায়ু কামনা করি। আমার দেরি হওয়ার জন্য ক্ষমা চাইছি।'শুধু বাংলার শ্রমিক নন,  দেশের বিভিন্ন প্রান্তে আটকে থাকা শ্রমিকদের বাড়ি পৌঁছানোই শুধু নয়, তাদের প্রয়োজনীর খাদ্যদ্রব্য, জল, পিপিই কিট সব কিছুর ব্যবস্থা করেছেন অভিনেতা। তার এই সাহায্যে মুগ্ধ হয়েছে নেটিজেনরা। সকলেই তাকে কুর্নিশ জানিয়েছেন।