বিনোদন জগতের জনপ্রিয় রিয়ালিটি শো-এর মধ্যে অন্যমত হল কেবিসি। যা দিয়ে নিজের ভাগ্য এক সময় ফিরিয়েছিলেন খোদ অমিতাভ বচ্চন। আর্থিকভাবে যখন ভেঙে পড়ছিলেন অমিতাভ, ঠিক তখনই তাঁর সামনে এসেছিল এই শো-এর প্রস্তাব। তাই ভাগ্যের পরিহাসের কথা অমিতাভ নিজের জীবন দিয়ে দেখেন। ফলে হটসিটে বসে থাকা মানুষের সংগ্রামের কাহিনি খুব সহজেই অমিতাভের মনকে ছুঁয়ে যায়। এবারও ঠিক তেমনটাই হল। 

প্রতিযোগী ছিলেন সিঙ্গল মাদার। নাম, স্বরূপা দেশপাণ্ডে। নিজের স্বপ্ন পূরণের ইচ্ছে বুকে নিয়ে কেবিসি-তে আসেন হাজার হাজার মানুষ। প্রশ্নের উত্তর দিয়ে জিতে নেন বিপুল অঙ্কের টাকা। তবে সবার ভাগ্যের শিঁকে ছেঁড়ে না। ঠিক তেমনটাই ঘটে স্বরূপা দেশপাণ্ডের ক্ষেত্রে। মাত্র কয়েকটা প্রশ্নের উত্তর দিয়েই তাঁকে বাড়ি ফিরতে হয়। ব্যাগে থাকে কেবল দেড় লক্ষ টাকা। কিন্তু অমিতাভ বচ্চন তখনও ছিলেন সামনে। স্বরূপা দেশপাণ্ডের জীবনের নানা উঠা পড়ার গল্প তখন তাঁর শোনা শেষ। 

 

 

নিরাশ করলেন না বিগ বি। নিজেই হাতে তুলেদিলেন পাঁচ লাখ টাকা। সেই টাকা দিয়েই নিজের কিছুটা হলেও পথ চলাটা মসৃণ করতে পারবেন স্বরূপা দেশপাণ্ডে। সেই আশাতেই সাহায্যের হাত বাড়ালেন খোদ অমিতাভ। যা দেখে আবারও নেটিজেনদের প্রশংসা পেলেন অভিনেতা। তবে এবারই প্রথম নয়, মাঝে মধ্যেই অমিতাভ বচ্চন বহু মানুষকে এভাবেই সাহায্য করে থাকেন। প্রতিটা সিজিনেই কিছু না কিছু উপহার নিয়ে হাজির হন বিগ বি।