সোশ্যাল মিডিয়ায় বরাবরই সক্রিয় কঙ্গনা রানাওয়াত। একাধিক বিষয় নিয়ে প্রতি নিয়ত কলম ধরে থাকেন তিনি। এবার তাঁর নজরে ১৮ অগাস্ট। গত কয়েক বছর ধরেই এই তারিখ নিয়ে বেজায় তর্ক বিতর্কের ঝড় উঠেছে। কারণ এই দিনটাই স্থির করা হয়েছে নেতাজির মৃত্যুর দিন হিসেবে। যা আপামর বাঙালির মননে চাবুকের মত আঘাত হেনেছে। সকলের কাছে নেতাজি সুভাষ চন্দ্র বসু আজও জীবিত। 

 

 

তবে উইকিপিডিয়া তা বলে না। তাই সেই দিনটিই এখন উল্লেখ থাকে নেতাজির নামের তলা, তাঁর প্রয়াণ দিবস হিসেবে। এবার এই বিতর্কিত দিনেই নেতাজিকে নিয়ে কলম ধরলেন কঙ্গনা রানাওয়াত। লিখলেন, সাভারকর, লক্ষ্মীবাঈ, বাহাদুর শাহ জাফরের মতোই নেতাজির প্রাপ্যও তিনি পাননি ৷ ব্রিটিশ সরকারের অনুগতরাই তাঁর বিরুদ্ধে ঘৃণ্য প্রচার চালিয়ে গিয়েছেন ৷ বুদ্ধিজীবীরা লাগাতার দাবি করে এসেছেন, খড়গ ও ঢাল ছাড়াই আমরা স্বাধীনতা পেয়েছি ৷ যা একদমই সত্যি নয় ৷ স্বাধীনতা রক্ত চায়, আর নেতাজি দেশের স্বাধীনতার জন্য সেই রক্ত দিয়েছেন।

 

 

কঙ্গনা এদিন আরও লেখেন, আমি বামপন্থী আদর্শ বুঝি এবং তাকে সম্মানও করি ৷ তবে আমার ক্ষেত্রে তা কখনই খাটেনি ৷ তাই আমি ডানপন্থীতেই বিশ্বাস রাখি ৷ আমার অভিজ্ঞতা আমাকে বুঝিয়েছে, মানুযের সামনে ভিক্ষা করলে কাউকে কিছু দেয় না, নিজেরটা নিজেকে ছিনিয়ে নিতে হয়...। কঙ্গনার েই পোস্ট মুহূর্তে ছড়িয়ে পড়ে নেট দুনিয়ায়। পরিস্থিতির কবলে পড়ে কঙ্গনা দেখেছেন কীভাবে জীবন যুদ্ধে লড়াই চালিয়ে যেতে হয়, আর সেই কথাই তাঁর কলমে ফিরে ফিরে আসে।