ঋষি কাপুর, পর্দায় নানা মজার চরিত্র থেকে শুরু করে রোম্যান্টিক হিরোর ভুমিকায় যিনি ছিলেন সুপারহিট। সেই অভিনেতার জন্মদিনেই সোশ্যাল মিডিয়ার পাতা ভরে উঠল শুভেচ্ছাবার্তায়। প্রতিটা পদক্ষেপেই যিনি প্রমাণ দিতেন, যে কোনও প্রশ্ন উত্তর কীভাবে মজার ছলে দিয়ে বিতর্ক এড়ানো সম্ভব। পাশাপাশি স্পষ্ট কথা সাফ বলতে কখনই দ্বিধা বোধ করতেন না অভিনেতা। তার প্রমাণ মিলেছিল একাধিকবার। 

আরও পড়ুনঃ মাদক চক্রে যোগের সূত্র, রিয়ার বাড়িতে হানা দিল নারকোটিক্স কন্ট্রোল ব্যুরো, চলছে তল্লাশি

একবার এক সাক্ষাৎকারে ঋষি কাপুরের দক্ষতা নিয়ে প্রশ্ন ওঠে। ঋষি কাপুর মুহূর্তে উত্তর দিয়েছিলেন- এই যে আপনারা আমায় গিটার বাজাতে দেখেন, কংগো বাজাতে দেখেন, আসলো আমি কিছুই করি না, যা করি তা হলো আপনাদের বোকা বানাই। আর বোকা বানানোটাই আমার কাজ। আমি অভিনেতা, অভিনয়ের মধ্যে দিয়ে ফুঁটিয়ে তুলতে হয়, চরিত্রের বিভিন্ন গুণ, আর সেই তালিকাতেই থাকে এই বিশেষ বিশেষ গুণগুলোকেই আমায় অভিনয় করে দেখাতে হয়। 

 

এখানেই শেষ নয়, একবার নেপোটিজম নিয়েও প্রশ্ন করা হয়েছিল ঋষি কাপুরকে। বলিউডে নেপোটিজমের বার বাড়ন্ত। তা লক্ষ্য করেই প্রশ্ন করা হয়েছিল অভিনেতাকে, তিনি স্পষ্ট জানিয়ে দিয়েছিলেন না, বলিউডে কোনও নেপোটিজমই নেই, খানিক থেমে হেসে বলেছিলেন তিনি নিজেই রাজ কাপুরের ছেলে। এমনই মজার মানুষ ছিল ঋষি কাপুর। যাঁর জীবনের প্রতিটা পাতাই রঙ্গিন। অসুস্থ হয়ে পড়ার পরও দেখিয়েছেন, কীভাবে গান গেয়ে মজা করে হাসি মুখে বাস্তবকে গ্রহণ করতে হয়।