Asianet News BanglaAsianet News Bangla

dormant accounts- ব্যাঙ্কে রয়েছে নিষ্ক্রিয় অ্যাকাউন্ট, সঠিক গ্রাহককে টাকা ফেরৎ-র প্রস্তাব নির্মলা সীতারমণের

দেশের বিভিন্ন ব্যাাঙ্কে রয়েছে অসংখ্য নিষ্ক্রিয় অ্যাকাউন্ট , রয়েছে মোটা অঙ্কের টাকাও, সঠিক গ্রাহক খুঁজে টাকা ফেরতের প্রস্তাব নির্মলা সীতারমণের

Rupees 26,697 crore  lying in dormant accounts of banks, Said By FM Nirmala Shitaraman
Author
Kolkata, First Published Dec 2, 2021, 6:34 PM IST
  • Facebook
  • Twitter
  • Whatsapp

রাজ্যসভায়(Rajjya Sabha) শীতকালীন অধিবেশন(Winter Session) চলাকালীন একদিকে যেমন ডিজিটাল মুদ্রাকে দেশীয় মুদ্রা হিসাবে স্বীকৃতি না দেওয়ার কথা জানিয়েছেন কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারমণ তেমনই অন্যদিকে জিএসটি রোল আউটের জন্য রাজ্যগুলিকে ক্ষতিপূরণ দেওয়ার জন্য অঙ্গীকারবদ্ধ হয়েছেন কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী(Financial Minister)। ঠিক একইভাবে মঙ্গলবার রাজ্যসভায়(Rajjya Sabha) এক প্রশ্নের উত্তরে তিনি জানিয়েছেন, ২০২০ সালের ৩১ ডিসেম্বর অবধি দেশের বিভিন্ন বাণিজ্যিক ও সমবায় ব্যাঙ্কে ১০ বছর ধরে লেনদেনহীন অবস্থায় নিষ্ক্রিয় পড়ে রয়েছে প্রায় ৯ কোটি অ্যাকাউন্ট এবং ওই ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টগুলিতে সম্মিলিত ভাবে মোট ২৬,৬৯৭ কোটি টাকা জমা পড়ে রয়েছে। প্রায় ১০ বছর ধরে নিষ্ক্রিয় অবস্থায় পড়ে রয়েছে ৯ কোটি অ্যাকাউন্ট। রিজার্ভ ব্যাঙ্ক অফ ইন্ডিয়ার(RBI) তথ্য অনুযায়ী ২০২০ সালের ৩১ ডিসেম্বর অভধি বাণিজ্যিক ব্যাঙ্কগুলিতে এই নিষ্ক্রিয় অ্যাকাউন্টের সংখ্যা ৮.১৩ কোটিরও বেশি। আর সেই অ্যাকাউন্টগুলিতে জমা পড়ে রয়েছে প্রায় ২৪,৩৫৬ কোটি টাকা।  

একইভাবে নির্মলা সীতারমণ বলেন, শহরাঞ্চলের ব্যাঙ্কগুলির অ্যাকাউন্টও ১০ বছরের বেশি সময় ধরে নিষ্ক্রিয় অবস্থায় পড়ে রয়েছে। শহরাঞ্চলের সমবায় ব্যাঙ্কগুলিতে ৭৭ লক্ষের বেশি নিষ্ক্রিয় অ্যাকাউন্টে জমা অর্থের পরিমাণ ২,৩৪১ কোটি টাকা। উল্লেখ্য, এই পরিসংখ্যানটিও ২০২০ সালের ৩১ ডিসেম্বর অভধি। মঙ্গলবার রাজ্যসভার শীতকালীন অধিবেশনে কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী নির্মলাসীতারমণ বলেন, নিষ্ক্রিয় ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টগুলির সঠিক গ্রাহক অথবা তাঁর আইনি উত্তরাধিকারী খুঁজে বের করে তাঁদের ওই টাকা ফিরিয়ে দেওয়ার জন্য ব্যাঙ্কগুলিকে বলা হয়েছে। উল্লেখ্য, ১০ বছর অব্যবহৃত কোনও অ্যাকাউন্টে জমা টাকা কেউ ক্লেম না করলে তা রিজার্ভ ব্যাঙ্কের তৈরি ডিপোজিটর এডুকেশন অ্যান্ড অ্যাওয়ারনেস (ডিইএএফ) তহবিলে পাঠিয়ে দেওয়া হয়।

আরও পড়ুন-GST Compensation-GST রোল আউটের জন্য রাজ্যগুলিকে ক্ষতিপূরণ দেবে কেন্দ্র,ঘোষণা অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারমণের

আরও পড়ুন-RBI Proposal-ডিজিটাল কয়েনকে মুদ্রায় স্বীকৃতি দেওয়ার প্রস্তাব RBI-র, শীতকালীন অধিবেশনে উঠল প্রসঙ্গ

রাজ্য সভার শীতকালীন অধিবেশনে উঠে আসা তথ্য থেকে জানা যায় ডিপোজিট অ্যাকাউন্টের সংখ্যা ও সেখানে জমা থাকা  মোট অর্থের পরিমান। ৬৪ টি নন ব্যাঙ্কিং ফিন্যানসিয়াল অ্যাকাউন্টে তাকা অর্থের পরিমান ০.৭১ কোটি টাকা। কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী জানান, এই পরিসংখ্যানটি ২০২১ সালের ৩১ মার্চ পর্যন্ত। রিজার্ভ ব্যাঙ্ক অফ ইন্ডিয়ার তরফ থেকে নির্দেশ জারি করা হয়েছে যে,ব্যাঙ্কের কাস্টমার সার্ভিস পরিষেবার বিষয়টিতে বিশেষভাবে নজর দেওয়া হোক। ব্য়াঙ্কের তরফে একটি বার্ষিক রিপোর্ট পেশ করার জন্য বলা হয় যেখান থেকে একটা পরিস্কার ধারনা পাওয়া যায় যে কত অ্যাকাউন্ট নিষ্ক্রিয়ভাবে পড়ে রয়েছে। শুধু তাই নয় যাঁদের অ্যাকাউন্ট দীর্ঘসময় ধরে নিষ্ক্রিয় ভাবে পড়ে রয়েছে সেই সকল কাস্টমাররা যাতে যথার্থ কারণ সহ একটি চিঠি ব্যাঙ্কে জমা দেয়। কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী নর্মলা সীতারমণ বলেন, ব্যাংকগুলিকে তাদের নিজস্ব ওয়েবসাইটে দশ বছর বা তার বেশি সময় ধরে পড়ে থাকা নিষ্ক্রিয় অ্যাকাউন্টগুলির তালিকা প্রদর্শন করতে হবে। সেই তালিকায় অ্যাকাউন্টধারীদের নাম ও ঠিকানা থাকা বাধ্যতামূলক। 

Follow Us:
Download App:
  • android
  • ios