করোনা মহামারি মোকাবিলা ব্যর্থতা নিয়ে দেশে-বিদেশে সমালোচনার মুখে পড়েছে মোদী সরকার। গত কয়েকদিন ধরেই মোদী সরকারের সমালোচনা করে পোস্টার পড়েছিল দিল্লির দেওয়ালে দেওয়ালে। এনডিটিভি-র এক প্রতিবেদন অনুযায়ী, শনিবার, ওই ঘটনায় জড়িত সন্দেহে অন্তত ১২ জন ব্যক্তিকে গ্রেফতার করা হয়েছে। দিল্লি পুলিশ, তাঁদের বিরুদ্ধে জনসম্পত্তি নষ্ট করা-সহ ১৩টিরও বেশি আইনের ধারা অনুযায়ী এফআইআর দায়ের করেছে।

গত কয়েকদিন ধরেই দিল্লির বিভিন্ন জনবহুল এলাকার দেওয়ালে একটি কালো রঙের পোস্টার দেখা যাচ্ছিল। তাতে সাদা কালিতে হিন্দিতে লেখা ছিল, 'মোদীজি, আপনে হামারে বাচ্চোঁ কি ভ্যাকসিন বিদেশ কিউ ভেজ দিয়া?' বাংলা করলে দাঁড়ায়, মোদী জি, আপনি কেন আমাদের শিশুদের ভ্যাকসিন বিদেশে পাঠিয়ে দিয়েছেন? জানা গিয়েছে এই 'অপপ্রচার', পূর্ব দিল্লির এক এলাকা থেকে চালানো হচ্ছিল বলে খবর পেয়েছিল দিল্লি পুলিশ। এরপরই বৃহস্পতিবার, কল্যাণপুরী এলাকা থেকে ছয় জনকে গ্রেফতার করা হয়েছিল। সেখান থেকে এরকম ৮০০-রও বেশি পোস্টার এবং ব্যানার উদ্ধার করা হয়।

করোনাভাইরাস মহামারির দ্বিতীয় তরঙ্গে ভারতের মধ্যে সবথেকে খারাপ অবস্থা রাজধানী দিল্লিরই। গত কয়েক সপ্তাহ ধরে অক্সিজেন, রেমডিসিভির ও কোভিড রোগীদের চিকিৎসার প্রয়োজনীয় আরও অন্যান্য ওষুধপত্রের ঘাটতিতে হাসপাতালগুলি প্রায় অচল হয়ে গিয়েছে। হাজার হাজার মমানুষের অসহায় মৃত্যু ঘটেছে। তবে, গত দু-তিন দিন ধরে দৈনিক সংক্রমণের সংখ্যা কিছুটা কমতে দেখা গিয়েছে। যদিও গত তিন সপ্তাহ ধরে প্রতিদিনই ভারতে তিন লক্ষেরও বেশি সংখ্যায় দৈনিক নতুন সংক্রমণের ঘটনা ঘটেছে।

এদিনের ঘটনায় অবশ্য রাজনৈতিক বিশ্লেষকরা মনে করছেন, করোনা সংকট সমাধানের থেকেও সরকার এখন বেশি মনোযোগী সরকারের বিরুদ্ধে খারাপ প্রচার ঠেকাতে।