Asianet News BanglaAsianet News Bangla

Center's Omicron Alert: ওমিক্রন ২০০ পার করতেই রাজ্যে রাজ্যে কেন্দ্রের চিঠি, খুলতে হবে ওয়াররুম

ভারতে ওমিক্রন (Omicron) ভেরিয়েন্ট সংক্রমণ নিয়ে রাজ্যগুলিকে সতর্ক করল কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রক (Union Heath Ministry)। চিঠিতে কী জানালো কেন্দ্র? 
 

Centre alerts states about Omicron, says it 3 times more contagious ALB
Author
Kolkata, First Published Dec 21, 2021, 9:12 PM IST
  • Facebook
  • Twitter
  • Whatsapp

মঙ্গলবারই সকালেই, ভারতে ওমিক্রন (Omicron) ভেরিয়েন্ট সংক্রমণের ঘটনা ২০০ পার করেছে, বলে জানিয়েছিল কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রক (Union Heath Ministry)। আর সন্ধ্যাতেই রাজ্যে রাজ্যে এসে পৌঁছল কেন্দ্রের সতর্কবার্তা সম্বলিত চিঠি। কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য সচিব রাজেশ ভূষণের (Rajesh Bhushan) স্বাক্ষরিত সেই চিঠিতে রাজ্যগুলিকে বলা হয়েছে, করোনার ওমিক্রন ভেরিয়েন্ট, ডেল্টা ভেরিয়েন্টের (Delta Variant) থেকে ৩ গুণ বেশি সংক্রামক। এর জন্য রাজ্যগুলিকে 'আরও বৃহত্তর দূরদর্শিতা, তথ্য বিশ্লেষণ এবং দ্রুত সিদ্ধান্ত নেওয়ার' আহ্বান জানানো হয়েছে। 

ওমিক্রন ভেরিয়েন্ট সংক্রমণ হাতের বাইরে চলে যাওয়ার আগেই রাজ্য এবং কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলগুলিকে অবশ্যই কনটেইনমেন্ট জোন (Containment Zone) নির্ধারণ এবং করোনা সংক্রান্ত নিষেধাজ্ঞা (COVID-19 Restrictions) জারি করতে হবে। চূড়ান্ত সীমা কী হবে, তাও বলে দিয়েছে কেন্দ্র। চিঠিতে বলা হয়েছে, এক সপ্তাহে করোনা পরীক্ষা (Coronavirus Test) করে ১০ শতাংশ বা তার বেশি পজিটিভ ধরা পড়লে কিংবা অক্সিজেন সমর্থন বা আইসিইউ বেডের (ICU Bed) ৪০ শতাংশ ভর্তি হলে সেটাকেই চুড়ান্ত সীমা বলে ধরে নিতে হবে। চিঠিতে আরও জানানো হয়েছে ওমিক্রন ভেরিয়েন্ট সংক্রমণ ভারতে বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে দেশের বিভিন্ন স্থানে ডেল্টা ভেরিয়েন্ট সংক্রমণও ছড়াচ্ছে। তাই, অঞ্চল এবং জেলা স্তরে কনটেইনমেন্ট জোন ঘোষণার বিষয়ে দ্রুত সিদ্ধান্ত নিতে হবে। 

চিঠিতে নাইট কারফিউ (Night Curfew), বৃহৎ জমায়েতের নিয়ন্ত্রণ, অফিসে আসা কর্মীদের সংখ্যার উপর বিধিনিষেধ জারি এবং গণপরিবহন নিষিদ্ধের মতো বেশ কয়েকটি নিয়ন্ত্রণ ব্যবস্থার তালিকা দেওয়া হয়েছে। সেই সঙ্গে, হাসপাতালের শয্যা সংখ্যা, অ্যাম্বুলেন্স, অক্সিজেন সরঞ্জাম এবং ওষুধ সহ চিকিৎসা পরিকাঠামো বৃদ্ধির জন্য জরুরি তহবিল ব্যবহার করার উপদেশ দেওয়া হয়েছে। করোনা পরীক্ষা এবং নজরদারির বিষয়েও বেশ কিছু পরামর্শ দেওয়া হয়েছে। ঘরে ঘরে করোনা সংক্রমণের জন্য অনুসন্ধান, কোভিড পজিটিভ ব্যক্তিদের সংস্পর্শে যারা এসেছেন, তাদের সন্ধান এবং ওমিক্রনের জন্য ক্লাস্টার সনাক্তের জন্য নমুনা পরীক্ষার উপর জোর দিয়েছে। একই সঙ্গে কেন্দ্রশাসিত অঞ্চল ও রাজ্যগুলিকে ১০০ শতাংশ টিকাকরণের লক্ষ্য পূরণ করা নিশ্চিত করতে এবং তার জন্য টিকাকরণ প্রক্রিয়া ত্বরান্বিত করতে বলা হয়েছে।

মঙ্গলবার সকালে কেন্দ্র ওমিক্রন সংক্রমণ ২০০ পার করেছে জানানোর পর, এদিন সন্ধ্যায় মহারাষ্ট্র কোভিড-১৯ ভাইরাসের ওমিক্রন রূপান্তরের আরও ১১ টি নতুন সংক্রমণের ঘটনা রিপোর্ট করেছে। এর মধ্যে, আটজন রোগী মুম্বই বিমানবন্দরের করোনা পজিটিভ হিসাবে সনাক্ত হয়েছিলেন। বাকিরা পিম্পরি চিঞ্চোয়াড়, ওসমানাবাদ এবং নবি মুম্বই অঞ্চলের বাসিন্দা।

Follow Us:
Download App:
  • android
  • ios