ভোট মিটতেই তৃণমূলে বড় ভাঙনের ইঙ্গিত। আজই শুভ্রাংশু রায় সহ তৃণমূলের চার বিধায়ক যোগ দিতে পারেন বিজেপি-তে। ইতিমধ্যেই মুকুল রায়ের সঙ্গে দিল্লিতে পৌঁছে গিয়েছেন এই বিধায়করা। এছাড়াও তৃণমূলের হাতছাড়া হতে চলেছে অন্তত তিনটি পুরসভা। এই তিনটি পুরসভাই মুকুলের গড় কাঁচরাপাড়া, হালিশহর এলাকার। 

দিল্লিতে মুকুল রায় এবং শুভ্রাংশু রায়ের সঙ্গে পৌঁছে গিয়েছেন কাঁচরাপাড়া, হালিশহর এবং নৈহাটি পুরসভার অধিকাংশ কাউন্সিলররা। এর মধ্যে রয়েছেন কয়েকজন চেয়ারম্যান এবং ভাইস চেয়ারম্যানও। এই তিনটি পুরসভাই ছিল তৃণমূলের হাতে। শুভ্রাংশু রায় বিজেপি-তে যোগ দেওয়াতেই তাঁরাও দলবেঁধে বিজেপিতে যাচ্ছেন বলে জানিয়েছেন এই কাউন্সিলররা। এর মধ্যে হালিশহর পুরসভার ১৮জন, কাঁচরাপাড়া পুরসভার ১৪জন এবং নৈহাটি পুরসভার অন্তত ১৭জন কাউন্সিলর রয়েছেন। আজই তাঁরা আনুষ্ঠানিকভাবে বিজেপি-তে যোগ দিতে চলেছেন।

বিজেপি-তে যোগ দিতে চলা একটি পুরসভার এক ভাইস চেয়ারম্যান বলেন স্পষ্টই বলেন, যেভাবে শুভ্রাংশুকে সাসপেন্ড করেছে দল, তাতেই পরিষ্কার দলে কোনও একতা নেই। তৃণমূলের এই সিদ্ধান্ত না মানতে পেরেই তাঁরা বিজেপি-তে যাচ্ছেন বলে দাবি করেন ওই তৃণমূল নেতা। 

শুভ্রাংশু রায়কে আগেই সাসপেন্ড করেছিল তৃণমূল। সোমবারই মুকুল রায়ের সঙ্গে দিল্লি চলে গিয়েছিলেন শুভ্রাংশু। আজই তাঁর বিজেপি-তে যোগ দেওয়ার কথা। তৃণমূল নেতৃত্ব এই যোগদানের জন্য প্রস্তুতই ছিল। কিন্তু তৃণমূলকে জোর ধাক্কা দিয়ে আজই বিজেপিতে যোগ দিতে চলেছেন বাঁকুড়ার বিষ্ণুপুরের বিধায়ক তুষারকান্তি ভট্টাচার্য। তিনি সংবাদমাধ্যমে বিজেপি-তে যোগদানের কথা স্বীকারও করে নিয়েছেন। এর পাশাপাশি হেমতাবাদের বিধায়ক দেবেন্দ্রনাথ রায় এবং গঙ্গারামপুরের বিধায়ক গৌতম রায়ও আজই বিজেপি-তে যোগ দিতে পারেন। 

তৃণমূল থেকে বিজেপি-তে যোগদানকারী সব  নেতারাই ভিড় করেছেন দিল্লিতে মুকুলের বাড়িতে। সেখানে তাঁদের জন্য খাওয়দাওয়ার ব্যবস্থাও রাখা হয়েছে।