দীপিকা মানসিক অবসাদ নিয়ে 'ব্যবসা' করেন, সবটাই ভনিতা, দাবি কঙ্গনা রনাওয়াতের

First Published 21, Aug 2020, 10:28 PM

সুশান্ত সিং রাজপুতের মৃত্যুর পর বলিউড তারকাদের মধ্যে সবার আগে ইন্ডাস্ট্রির রাজনীতি এবং স্বজনপোষণের বিরুদ্ধে স্বর তুঙ্গে তুলেছিলেন কঙ্গনা রনাওয়াত। তিনি ব্যক্তিগতভাবে করণ জোহারকে স্বজনপোষণ নিয়ে তাঁর শো কফি উইথ করণে গিয়ে অপদস্ত করে এসেছিলেন। এই স্বজনপোষণের বিরুদ্ধে বলতে গিয়ে পাল্টা ধাক্কা খেয়েছিলেন কঙ্গনা। নিজের বোন রঙ্গোলি চান্ডেল এবং অক্ষত রনাওয়াতকে নিজের প্রযোজনা সংস্থায় চাকরি দেওয়ার কারণে তাঁকে নিয়ে চলছে একপ্রস্থ নিন্দা। তবুও দমেননি তিনি। এবার বলিউডের একাধিক অভিনেতা-অভিনেত্রীদের বিরুদ্ধে সোচ্চার হচ্ছেন তিনি। 

<p>দীপিকা পাডুকোনের মানসিক অবসাদ কেবল ভনিতা মাত্র। এমনই বলে ফেললেন কঙ্গনা। সম্প্রতি এক সাক্ষাৎকারে কঙ্গনা জানান, দীপিকার মানসিক অবসাদ আসলে নাটক।</p>

দীপিকা পাডুকোনের মানসিক অবসাদ কেবল ভনিতা মাত্র। এমনই বলে ফেললেন কঙ্গনা। সম্প্রতি এক সাক্ষাৎকারে কঙ্গনা জানান, দীপিকার মানসিক অবসাদ আসলে নাটক।

<p>দীপিকার মানসিক অবসাদ হঠাৎ আট বছর পর ফিরে আসে কীকরে। এই মানসিক অবসাদের মাঝে তিনি বিয়েও করলেন, তার আগে একাধিক সম্পর্কও ছিল।&nbsp;</p>

দীপিকার মানসিক অবসাদ হঠাৎ আট বছর পর ফিরে আসে কীকরে। এই মানসিক অবসাদের মাঝে তিনি বিয়েও করলেন, তার আগে একাধিক সম্পর্কও ছিল। 

<p>এই ধরণের মানসিক অবসাদ নাকি হয় না। কঙ্গনা আরও বলেন, দীপিকা নাকি, মানসিক অবসাদের নামে আসলে ব্যবসা করেন। সুশান্তের মৃত্যুর পর সেই ব্যবসা এখন তুঙ্গে।&nbsp;</p>

এই ধরণের মানসিক অবসাদ নাকি হয় না। কঙ্গনা আরও বলেন, দীপিকা নাকি, মানসিক অবসাদের নামে আসলে ব্যবসা করেন। সুশান্তের মৃত্যুর পর সেই ব্যবসা এখন তুঙ্গে। 

<p>বেছে বেছে সুশান্ত সংক্রান্ত মানসিক অবসাদের পোস্ট শেয়ার করেন দীপিকা। যাতে তিনি সকলের সহানুভূতি নিতে পারেন। দীপিকার বিরুদ্ধে ক্ষোভ উগরে দিয়েছেন কঙ্গনা।&nbsp;</p>

বেছে বেছে সুশান্ত সংক্রান্ত মানসিক অবসাদের পোস্ট শেয়ার করেন দীপিকা। যাতে তিনি সকলের সহানুভূতি নিতে পারেন। দীপিকার বিরুদ্ধে ক্ষোভ উগরে দিয়েছেন কঙ্গনা। 

<p>কঙ্গনাকেও দিন কতক আগে স্বজনপোষণ নিয়ে পাল্টা জবাব পেতে হয়। বলিউডে এসেছিলেন আদিত্য পঞ্চোলির হাত ধরে। তাঁর সঙ্গে কঙ্গনার নাম জড়ানো, কঙ্গনাকে শারীরিক অত্যাচার করা বিভিন্ন তথ্যই প্রকাশ্যে আসে বহু পরে।&nbsp;</p>

কঙ্গনাকেও দিন কতক আগে স্বজনপোষণ নিয়ে পাল্টা জবাব পেতে হয়। বলিউডে এসেছিলেন আদিত্য পঞ্চোলির হাত ধরে। তাঁর সঙ্গে কঙ্গনার নাম জড়ানো, কঙ্গনাকে শারীরিক অত্যাচার করা বিভিন্ন তথ্যই প্রকাশ্যে আসে বহু পরে। 

<p>আদিত্য পঞ্চোলির মাধ্যমে বলিউডে আসার কারণে কঙ্গনাকেও নেপটিজমের প্রোডাক্ট বলে দাবি করছে একাংশ নেটিজেনের দল। তাদের কথায়, কঙ্গনা সুশান্তের হয়ে লড়ছেন না।</p>

আদিত্য পঞ্চোলির মাধ্যমে বলিউডে আসার কারণে কঙ্গনাকেও নেপটিজমের প্রোডাক্ট বলে দাবি করছে একাংশ নেটিজেনের দল। তাদের কথায়, কঙ্গনা সুশান্তের হয়ে লড়ছেন না।

<p>সুযোগ বুঝে বলিউডের বিরুদ্ধে দাঁড়াবেন বলে সুশান্তের মৃত্যুকে কারণে হিসেবে দেখাচ্ছেন। কঙ্গনা নাকি নিজেও নেপটিজমের কারণেই ইন্ডাস্ট্রিতে এতদূর আসতে পেরেছেন। আজ যে মহেশ ভাটের কারণেও তিনি গ্যাংস্টার ছবিতে প্রধান নায়িকার চরিত্রে ব্রেক পান।&nbsp;</p>

সুযোগ বুঝে বলিউডের বিরুদ্ধে দাঁড়াবেন বলে সুশান্তের মৃত্যুকে কারণে হিসেবে দেখাচ্ছেন। কঙ্গনা নাকি নিজেও নেপটিজমের কারণেই ইন্ডাস্ট্রিতে এতদূর আসতে পেরেছেন। আজ যে মহেশ ভাটের কারণেও তিনি গ্যাংস্টার ছবিতে প্রধান নায়িকার চরিত্রে ব্রেক পান। 

<p>এই মহেশ ভাটকে সিঁড়ি করেই নাকি কঙ্গনা অনেক দূর এসেছেন। জনপ্রিয়তা পাওয়ার পর মহেশ ভাটের বিরুদ্ধে নানা অভিযোগ এনেছিলেন কঙ্গনা। এরপরই হৃত্বিক রোশনের সঙ্গে কঙ্গনার অ্যালেজেড প্রেম। যার সমস্যার অন্ত নেই।&nbsp;</p>

এই মহেশ ভাটকে সিঁড়ি করেই নাকি কঙ্গনা অনেক দূর এসেছেন। জনপ্রিয়তা পাওয়ার পর মহেশ ভাটের বিরুদ্ধে নানা অভিযোগ এনেছিলেন কঙ্গনা। এরপরই হৃত্বিক রোশনের সঙ্গে কঙ্গনার অ্যালেজেড প্রেম। যার সমস্যার অন্ত নেই। 

<p>হৃত্বিক নিজেই একজন তারকার ছেলে। সেখানে হৃত্বিকের সঙ্গে সম্পর্কে থাকাকালীন 'কাইটস' ছবিতে অভিনয়ের সুযোগ পান কঙ্গনা। নেটিজেনের প্রশ্ন, কঙ্গনা যদি নেপটিজম পছন্দই না করেন তাহলে হৃত্বিকের হাত ধরে বড় ছবির ব্যানারে কাজ করলেন কেন।&nbsp;</p>

হৃত্বিক নিজেই একজন তারকার ছেলে। সেখানে হৃত্বিকের সঙ্গে সম্পর্কে থাকাকালীন 'কাইটস' ছবিতে অভিনয়ের সুযোগ পান কঙ্গনা। নেটিজেনের প্রশ্ন, কঙ্গনা যদি নেপটিজম পছন্দই না করেন তাহলে হৃত্বিকের হাত ধরে বড় ছবির ব্যানারে কাজ করলেন কেন। 

<p>অন্যদিকে তাঁর ব্যক্তিগত জীবনেও নেপোটিজমের ছোঁয়া। নিজের বোন রঙ্গোলি চান্ডেলকে নিজের ম্যানেজার হিসেবে রেখেছেন। যেখানে তাঁৎ বোনের পাব্লিক রিলেশন থেকে শুরু করে পার্সোনাল ম্যানেজার হওয়ার কোনও যোগ্যতাই অর্জন করেননি।&nbsp;</p>

অন্যদিকে তাঁর ব্যক্তিগত জীবনেও নেপোটিজমের ছোঁয়া। নিজের বোন রঙ্গোলি চান্ডেলকে নিজের ম্যানেজার হিসেবে রেখেছেন। যেখানে তাঁৎ বোনের পাব্লিক রিলেশন থেকে শুরু করে পার্সোনাল ম্যানেজার হওয়ার কোনও যোগ্যতাই অর্জন করেননি। 

<p>এছাড়াও নেটিজেন প্রশ্ন তুলেছে, তাঁর ভাই অক্ষত রনাওয়তকে নিয়ে। নিজের প্রযোজনা সংস্থা খোলার পর কঙ্গনা তাঁর ভাই অক্ষতকে আইনি এবং আর্থিক দিকটি দেখার দায়িত্ব দিয়েছেন।&nbsp;</p>

এছাড়াও নেটিজেন প্রশ্ন তুলেছে, তাঁর ভাই অক্ষত রনাওয়তকে নিয়ে। নিজের প্রযোজনা সংস্থা খোলার পর কঙ্গনা তাঁর ভাই অক্ষতকে আইনি এবং আর্থিক দিকটি দেখার দায়িত্ব দিয়েছেন। 

loader