অবশেষে মুক্তি পেল মোদীর বায়োপিক! কতটা কাঠখড় পুড়ল

First Published 24, May 2019, 12:31 PM IST

  • অবশেষে আজ মুক্তি পেল পিএম নরেন্দ্র মোদী।
  • ছবিটি নিবার্চন চলাকালীনই মুক্তি পাওয়ার কথা ছিল।
  • নিবার্চনী বিধি লঙ্ঘন হতে পারে বলে ছবিটি আটকে দেয় কমিশন।
বিরাট জয় হয়েছে গেরুয়া বাহিনীর। তাই আজ অবশেষে প্রেক্ষাগৃহে মুক্তি পেল নরেন্দ্র মোদীর বায়োপিক পিএম নরেন্দ্র মোদী।

বিরাট জয় হয়েছে গেরুয়া বাহিনীর। তাই আজ অবশেষে প্রেক্ষাগৃহে মুক্তি পেল নরেন্দ্র মোদীর বায়োপিক পিএম নরেন্দ্র মোদী।

সুরেশ ওবেরয় ও সন্দীপ সিং প্রযোজিত এই ছবিতে মোদীর চরিত্রে অভিনয় করেছেন বিবেক ওবেরয়। তবে বিবেক শুধু অভিনয়ই  করেননি। এই ছবিতে তিনি কো-রাইটার হিসেবেও কাজ করেছেন।

সুরেশ ওবেরয় ও সন্দীপ সিং প্রযোজিত এই ছবিতে মোদীর চরিত্রে অভিনয় করেছেন বিবেক ওবেরয়। তবে বিবেক শুধু অভিনয়ই করেননি। এই ছবিতে তিনি কো-রাইটার হিসেবেও কাজ করেছেন।

এই ছবির প্রথম লুকট প্রকাশিত হয় এবছরের ৭ জানুয়ারি। ছবিটি মোট ২৩টি ভাষায় মুক্তি পাচ্ছে। পিএম নরেন্দ্র মোদী বায়োপিকে দেখানো হবে একজন রাজনীতিক হয়ে উঠতে মোদী কতটা  স্ট্রাগল করেছেন।

এই ছবির প্রথম লুকট প্রকাশিত হয় এবছরের ৭ জানুয়ারি। ছবিটি মোট ২৩টি ভাষায় মুক্তি পাচ্ছে। পিএম নরেন্দ্র মোদী বায়োপিকে দেখানো হবে একজন রাজনীতিক হয়ে উঠতে মোদী কতটা স্ট্রাগল করেছেন।

বায়োপিকে নরেন্দ্র মোদীর সঙ্গে দেখা যাবে অমিত শাহকেও। বিজেপি সভাপতির  চরিত্রে দেখা যাবে মনোজ যোশীকে।

বায়োপিকে নরেন্দ্র মোদীর সঙ্গে দেখা যাবে অমিত শাহকেও। বিজেপি সভাপতির চরিত্রে দেখা যাবে মনোজ যোশীকে।

মোদীর চরিত্রে প্রথমে পরেশ রাওয়ালের অভিনয় করার কথা ছিল। তাঁর প্রযোজনাতেই ছবিটি হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু তার পরে বিবেক ওবেরয়কেই বেছে নেওয়া হয়।

মোদীর চরিত্রে প্রথমে পরেশ রাওয়ালের অভিনয় করার কথা ছিল। তাঁর প্রযোজনাতেই ছবিটি হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু তার পরে বিবেক ওবেরয়কেই বেছে নেওয়া হয়।

এই ছবির শ্যুটিং হয়েছে আহমেদাবাদ ও উত্তরকাশীতে। ছবির বেশ কিছু অংশ শ্যুটিং হয়েছে মুম্বইতেও। উত্তরকাশীতে একটি দৃশ্যে অভিনয় করার সময়ে চোট পেয়েছিলেন বিবেক।

এই ছবির শ্যুটিং হয়েছে আহমেদাবাদ ও উত্তরকাশীতে। ছবির বেশ কিছু অংশ শ্যুটিং হয়েছে মুম্বইতেও। উত্তরকাশীতে একটি দৃশ্যে অভিনয় করার সময়ে চোট পেয়েছিলেন বিবেক।

৯ এপ্রিল এই ছবি সেনসর বোর্ডের ছাড়পত্র পায়। ছবিটি নির্বাচন চলাকালীনই মুক্তি পাওয়ার কথা ছিল। কিন্তু বিজেপি বিরোধীরা দাবি করে, এই ছবি নির্বাচনের সময়ে প্রোপাগ্যান্ডার মতো কাজ করবে, যা নির্বাচনী বিধিকে লঙ্ঘন করবে। সেই ছবির মুক্তি আটকে দেয় কমিশন।

৯ এপ্রিল এই ছবি সেনসর বোর্ডের ছাড়পত্র পায়। ছবিটি নির্বাচন চলাকালীনই মুক্তি পাওয়ার কথা ছিল। কিন্তু বিজেপি বিরোধীরা দাবি করে, এই ছবি নির্বাচনের সময়ে প্রোপাগ্যান্ডার মতো কাজ করবে, যা নির্বাচনী বিধিকে লঙ্ঘন করবে। সেই ছবির মুক্তি আটকে দেয় কমিশন।

সম্প্রতি ছবির আরও একটি পোস্টার বেরোয়, যেখানে লেখা, আ রহে হ্যায় দোবারা, অব কোই নেহি রোক সকতা।

সম্প্রতি ছবির আরও একটি পোস্টার বেরোয়, যেখানে লেখা, আ রহে হ্যায় দোবারা, অব কোই নেহি রোক সকতা।

ছবির সঙ্গীত পরিচালনা করেছেন এআর রহমান, হিতেশ মোদক ও শশী খুশি। গীতিকার জাভেদ আখতার। যদিও জাভেদ আখতার পোস্টারে নিজের নাম দেখে অবাক হয়েছিলেন। কারণ তিনি এই ছবিতে সরাসরি ভাবে কোনও কাজ করেননি। পরে জানা যায়, ছবিতে পুরনো ছবির গান ব্যবহৃত হয়েছে, যা জাভেদ আখতারের লেখা।

ছবির সঙ্গীত পরিচালনা করেছেন এআর রহমান, হিতেশ মোদক ও শশী খুশি। গীতিকার জাভেদ আখতার। যদিও জাভেদ আখতার পোস্টারে নিজের নাম দেখে অবাক হয়েছিলেন। কারণ তিনি এই ছবিতে সরাসরি ভাবে কোনও কাজ করেননি। পরে জানা যায়, ছবিতে পুরনো ছবির গান ব্যবহৃত হয়েছে, যা জাভেদ আখতারের লেখা।

ছবিটি নিয়ে বিতর্কের ঝড় উঠেছিল। অবশেষে সেটি আজ মুক্তি পেয়েছে। এখন দেখার এই ছবি কেমন সাড়া ফেলে দর্শকদের মধ্যে।

ছবিটি নিয়ে বিতর্কের ঝড় উঠেছিল। অবশেষে সেটি আজ মুক্তি পেয়েছে। এখন দেখার এই ছবি কেমন সাড়া ফেলে দর্শকদের মধ্যে।

loader