ভোর থেকে রাত চলল তল্লাসি, জেরা, অবশেষে গ্রেফতার, আদালতে তোলা হবে সৌভিক ও স্যাম্যুয়েলকে

First Published 4, Sep 2020, 11:58 PM

সদ্য গ্রেফতার করা হয়েছে রিয়া চক্রবর্তীর ভাই সৌভিক চক্রবর্কীকে। এমনকি গ্রেফতার করা হয়েছে প্রয়াত অভিনেতা সুশান্ত সিং রাজপুতের বাড়ির ম্যানেল স্যাম্যুয়েল মিরান্ডাকেও। শুক্রবার ৪ সেপ্টেম্বর ভোর থেকেই চলল এনসিবির তদন্ত। তদন্ত, তল্লাসি, জেরা। সারাদিন এগুলি চলার পরই ড্রাগ পাচারের অভিযোগে গ্রেফতার করা হল এই দু'জনকে। আগামীকাল অর্থাৎ শনিবার আদালতে পেশ করা হবে সৌভিক এবং স্যাম্যুয়েলকে। নার্কোটিক্সের দণ্ডবিধি অনুযায়ী ২০, ২২, ২৬, ২৭ এবং ২৮ ধারায় অভিযোগ দায়ের হয়েছে তাঁদের বিরুদ্ধে। 
 

<p>ভোর ৬:৪০ নাগাদ এনসিবি-র ভিন্ন দু'টি টিম পৌঁছয় রিয়া এবং স্যাম্যুয়েলের বাড়িতে। তাঁদের বাড়িতে দেড় ঘন্টা মত চলে তল্লাসি।&nbsp;</p>

ভোর ৬:৪০ নাগাদ এনসিবি-র ভিন্ন দু'টি টিম পৌঁছয় রিয়া এবং স্যাম্যুয়েলের বাড়িতে। তাঁদের বাড়িতে দেড় ঘন্টা মত চলে তল্লাসি। 

<p>রিয়ার বাড়ি থেকে এনসিবি খুঁজে পায় কিছু গুরুত্বপূর্ণ নথি। সেই নথি খুঁজে পাওয়ার পরই হেফাজতে নেওয়া হয় সৌভিক এবং স্যাম্যুয়েলকে।&nbsp;</p>

রিয়ার বাড়ি থেকে এনসিবি খুঁজে পায় কিছু গুরুত্বপূর্ণ নথি। সেই নথি খুঁজে পাওয়ার পরই হেফাজতে নেওয়া হয় সৌভিক এবং স্যাম্যুয়েলকে। 

<p>এনসিবি তাঁদের প্রায় নয় ঘন্টারও বেশি জেরা করে। সারাদিন জেরা চলতে থাকার পরই বিকেলের দিকে বিস্ফোরক কথা বলেন ওঠেন সৌভিক।&nbsp;</p>

এনসিবি তাঁদের প্রায় নয় ঘন্টারও বেশি জেরা করে। সারাদিন জেরা চলতে থাকার পরই বিকেলের দিকে বিস্ফোরক কথা বলেন ওঠেন সৌভিক। 

<p style="text-align: justify;">রিয়ার কথাতেই ড্রাগ নিয়ে আসতেন সৌভিক। সৌভিক জানান, রিয়া তাঁকে ড্রাগ পাচারকারীদের সঙ্গে যোগাযোগ করতেবলতেন।&nbsp;</p>

রিয়ার কথাতেই ড্রাগ নিয়ে আসতেন সৌভিক। সৌভিক জানান, রিয়া তাঁকে ড্রাগ পাচারকারীদের সঙ্গে যোগাযোগ করতেবলতেন। 

<p style="text-align: justify;">সেই মত যোগাযোগ করে ড্রাগ আনতেন তিনি। এরপর রাত নটা সাড়ে নটা অবধি জেরা চলতেই গ্রেফতার করা হয় তাঁকে।&nbsp;</p>

সেই মত যোগাযোগ করে ড্রাগ আনতেন তিনি। এরপর রাত নটা সাড়ে নটা অবধি জেরা চলতেই গ্রেফতার করা হয় তাঁকে। 

<p>অন্যদিকে স্যাম্যুয়েলকে জেরায় কী কী প্রশ্ন করা হয় তা জানা যায়নি। তবে জেরার পরই তাঁকে গ্রেফতার করা হয়।&nbsp;</p>

অন্যদিকে স্যাম্যুয়েলকে জেরায় কী কী প্রশ্ন করা হয় তা জানা যায়নি। তবে জেরার পরই তাঁকে গ্রেফতার করা হয়। 

<p>তাঁদের গ্রেফতারের পর হেফাজতে নেওয়া হয়েছে সুশান্তের বাড়ির পরিচারক দীপেশ সাওয়ান্তকে।&nbsp;</p>

তাঁদের গ্রেফতারের পর হেফাজতে নেওয়া হয়েছে সুশান্তের বাড়ির পরিচারক দীপেশ সাওয়ান্তকে। 

<p>জানা যাচ্ছে তাঁকে এই মুহূর্তে জেরা করা হচ্ছে। অন্যদিকে সূত্রের খবর, গ্রেফতার হওয়ার ভয় রিয়া নিজেই আগামীকাল আদালতে দ্বারস্থ হবেন।</p>

জানা যাচ্ছে তাঁকে এই মুহূর্তে জেরা করা হচ্ছে। অন্যদিকে সূত্রের খবর, গ্রেফতার হওয়ার ভয় রিয়া নিজেই আগামীকাল আদালতে দ্বারস্থ হবেন।

loader