অতিমারির পাশে অতিবৃষ্টির সঙ্গে লড়াই চলছে, এই রাজ্যে বানভাসী ১৩টি জেলায় ক্ষতিগ্রস্ত লক্ষাধিক

First Published 29, Sep 2020, 5:54 PM

প্রকৃতির তাণ্ডবে ক্রমশই বিপর্যস্ত হয়ে পড়েছে উত্তর পূর্বের পাহাড়ি রাজ্য অসম। টানা বৃষ্টিতে চলতে বছর এই নিয়ে তিনবার বানভাসী হল অমস। বর্তমানে ১৩ টি জেলা বন্যা বিধ্বস্ত হয়েছে। ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে রাজ্যের ৩ লক্ষেরও বেশি মানুষ। এখনও পর্যন্ত ১১৯ জনের মৃত্যু হয়েছে বন্যার কবলে পড়ে। স্থানীয় উদ্ধারে ত্রাণ শিবির খোলা হয়েছে। তবে নষ্ট হয়েছে হাজার হাজার হেক্টর জমির ফসল। 
 

<p><strong>টানা বৃষ্টতে বিপর্যস্ত অসম। ডেমজিতে জলের তোড়ে ভেসে গেছে একজন। &nbsp;আর নাগাওনে মৃত্যু হয়েছে এক ব্যক্তির। সবব মিলিয়ে এপর্যন্ত অসমের বন্যা প্রাণ কেড়েছে ১১৯ জনের।&nbsp;</strong><br />
&nbsp;</p>

টানা বৃষ্টতে বিপর্যস্ত অসম। ডেমজিতে জলের তোড়ে ভেসে গেছে একজন।  আর নাগাওনে মৃত্যু হয়েছে এক ব্যক্তির। সবব মিলিয়ে এপর্যন্ত অসমের বন্যা প্রাণ কেড়েছে ১১৯ জনের। 
 

<p><strong>&nbsp;অসম প্রশাসনের তরফে জানান হয়েছে এখনও পর্যন্ত রাজ্যের ১৩টি জেলার বন্যা পরিস্থিতি তৈরি হয়েছে। ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছেন ৩ লক্ষ ১৭ হাজার ৯৯৭ জন।&nbsp;</strong></p>

 অসম প্রশাসনের তরফে জানান হয়েছে এখনও পর্যন্ত রাজ্যের ১৩টি জেলার বন্যা পরিস্থিতি তৈরি হয়েছে। ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছেন ৩ লক্ষ ১৭ হাজার ৯৯৭ জন। 

<p><strong>রাজ্যের ৩৮৯ টি গ্রাম রয়েছে জলের তলায়। ১৩ হাজার হেক্টর জমির ফসল নষ্ট হয়েছে।&nbsp;</strong></p>

রাজ্যের ৩৮৯ টি গ্রাম রয়েছে জলের তলায়। ১৩ হাজার হেক্টর জমির ফসল নষ্ট হয়েছে। 

<p><strong>&nbsp;অসম প্রশাসনের তরফে জানান হয়েছে সবথেকে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত ৪টি জেলায় ২টি ত্রাণ শিবির আর ১১টি সরবরাহ ক্যাম্প খোলা হয়েছে। সবথেকে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে নাগাওন জেলা। এই জেলার ১ লক্ষেরও বেশি মানুষ সমস্যায় পড়েছেন।&nbsp;</strong><br />
&nbsp;</p>

 অসম প্রশাসনের তরফে জানান হয়েছে সবথেকে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত ৪টি জেলায় ২টি ত্রাণ শিবির আর ১১টি সরবরাহ ক্যাম্প খোলা হয়েছে। সবথেকে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে নাগাওন জেলা। এই জেলার ১ লক্ষেরও বেশি মানুষ সমস্যায় পড়েছেন। 
 

<p><strong>প্রবল বৃষ্টিতে জোরহাট, সোনিতপুরসহ বেশ কয়েকটি জেলা বিপদসীমার ওপর দিয়ে বইছে ব্রহ্মপুত্র।&nbsp;</strong></p>

প্রবল বৃষ্টিতে জোরহাট, সোনিতপুরসহ বেশ কয়েকটি জেলা বিপদসীমার ওপর দিয়ে বইছে ব্রহ্মপুত্র। 

<p><strong>ব্রহ্মপুত্রে জল বাড়ায় অসমের রাজধানী গুয়াহাটি থেকে উত্তর গুয়াহাটি পর্যন্ত বন্ধ রাখা হয়েছে ফেরি সার্ভিস। স্থানীয় প্রশাসন জানিয়েছে মঙ্গলবার ব্রহ্মপুত্রে বিপদসীমার ওপর দিয়ে বই ছিল জল।&nbsp;</strong></p>

ব্রহ্মপুত্রে জল বাড়ায় অসমের রাজধানী গুয়াহাটি থেকে উত্তর গুয়াহাটি পর্যন্ত বন্ধ রাখা হয়েছে ফেরি সার্ভিস। স্থানীয় প্রশাসন জানিয়েছে মঙ্গলবার ব্রহ্মপুত্রে বিপদসীমার ওপর দিয়ে বই ছিল জল। 

<p><strong>চলতি বছর এই নিয়ে তৃতীয়বার বন্যা পরিস্থিতি তৈরি হয়েছে অসমে। করোনাভাইরাসের মহামারির মধ্যেই &nbsp;মধ্যেই স্থানীয়দের লড়াই চালাচ্ছে হচ্ছে প্রাকৃতিক তাণ্ডবের বিরুদ্ধে।&nbsp;</strong></p>

চলতি বছর এই নিয়ে তৃতীয়বার বন্যা পরিস্থিতি তৈরি হয়েছে অসমে। করোনাভাইরাসের মহামারির মধ্যেই  মধ্যেই স্থানীয়দের লড়াই চালাচ্ছে হচ্ছে প্রাকৃতিক তাণ্ডবের বিরুদ্ধে। 

<p><strong>রাজ্য প্রশাসনের তরফে জানান হয়েছে অতিবৃষ্টির প্রভাব পড়েছে ৫৬ লক্ষেরও বেশি মানুষের ওপর। রাজ্যের ৩০টি জেলাই কমবেশি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। ৬০০ টিওর বেশি ত্রাণ শিবির চালান হয়েছিল।&nbsp;</strong></p>

রাজ্য প্রশাসনের তরফে জানান হয়েছে অতিবৃষ্টির প্রভাব পড়েছে ৫৬ লক্ষেরও বেশি মানুষের ওপর। রাজ্যের ৩০টি জেলাই কমবেশি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। ৬০০ টিওর বেশি ত্রাণ শিবির চালান হয়েছিল। 

loader