দেশের বাজারে পেঁয়াজ সংকটে দিশেহারা মোদী ফের বন্ধ করলেন রফতানি, ক্ষোভ বাড়ছে 'বন্ধু' ঢাকার

First Published 15, Sep 2020, 9:38 AM

অতিবৃষ্টি ও বন্যার কবলে পড়ে ঘাটতি দেখা দিয়েছে পেঁয়াজের। যার ফলে দেশের বাজারে ক্রমেই বেড়ে চলেছে পেঁয়াজের দাম। এই অবস্থায় পেঁয়াজকে সহজলভ্য করতে ও ক্রমে বেড়ে চলা দাম নিয়ন্ত্রণে আনতে দেশের বাইরে পেঁয়াজ রফতানি নিষিদ্ধ করার পথেই  হাঁটল ভারত।

<p><strong>দক্ষিণ ভারতের বেশ কয়েকটি রাজ্যে ভারী বৃষ্টিপাতের কারণে, এবার প্রচুর পরিমাণে পেঁয়াজ ক্ষেতেই নষ্ট হয়ে গিয়েছে। মাথায় হাত পড়েছে সব পেঁয়াজ চাষিদের। যার জেরে দেশীয় বাজারেও পেঁয়াজের দাম বাড়ছে।&nbsp;</strong></p>

<p><br />
&nbsp;</p>

দক্ষিণ ভারতের বেশ কয়েকটি রাজ্যে ভারী বৃষ্টিপাতের কারণে, এবার প্রচুর পরিমাণে পেঁয়াজ ক্ষেতেই নষ্ট হয়ে গিয়েছে। মাথায় হাত পড়েছে সব পেঁয়াজ চাষিদের। যার জেরে দেশীয় বাজারেও পেঁয়াজের দাম বাড়ছে। 


 

<p><strong>পাইকারি হার অগ্নিমূল্য হওয়ায় সাধারণ খুচরো বাজারেও চড়া দামে বিকোচ্ছিল পেঁয়াজ।</strong></p>

পাইকারি হার অগ্নিমূল্য হওয়ায় সাধারণ খুচরো বাজারেও চড়া দামে বিকোচ্ছিল পেঁয়াজ।

<p><strong>এই অবস্থায় ফের পেঁয়াজ রফতানি বন্ধের পথেই হাঁটল ভারত সরকার। &nbsp;ডায়রেক্টর জেনারেল অফ ফরেন ট্রেড (এজেন্সি)র তরফে একটি বিজ্ঞপ্তি জারি করে বলা হয়েছে, সমস্ত ধরনের পেঁয়াজের রফতানির ক্ষেত্রে নিষেধাজ্ঞা জারি করা হল।</strong></p>

এই অবস্থায় ফের পেঁয়াজ রফতানি বন্ধের পথেই হাঁটল ভারত সরকার।  ডায়রেক্টর জেনারেল অফ ফরেন ট্রেড (এজেন্সি)র তরফে একটি বিজ্ঞপ্তি জারি করে বলা হয়েছে, সমস্ত ধরনের পেঁয়াজের রফতানির ক্ষেত্রে নিষেধাজ্ঞা জারি করা হল।

<p><strong>দেশে &nbsp;সবচেয়ে বেশি পেঁয়াজ হয় মহারাষ্ট্রে। সেখান থেকে যেমন পেঁয়াজ রফতানি করা যাবে না, তেমনি কর্ণাটক বা তামিলনাডু থেকেও পেঁয়াজ রফতানি করা যাবে না।</strong></p>

দেশে  সবচেয়ে বেশি পেঁয়াজ হয় মহারাষ্ট্রে। সেখান থেকে যেমন পেঁয়াজ রফতানি করা যাবে না, তেমনি কর্ণাটক বা তামিলনাডু থেকেও পেঁয়াজ রফতানি করা যাবে না।

<p><strong>ভারত থেকে বেশ বড় পরিমাণে পেঁয়াজ বিদেশে রপ্তানি করা হয়। এপ্রিল থেকে জুনের মধ্যে এদেশ থেকে ১৯.৮ মিলিয়ন ডলারের পেঁয়াজ রফতানি করা হয়েছিল। ভারত থেকে সবচেয়ে বেশি পেঁয়াজ রফতানি হয় শ্রীলঙ্কা, বাংলাদেশ, মালয়েশিয়া এবং সংযুক্ত আরব আমিরশাহীতে।</strong></p>

ভারত থেকে বেশ বড় পরিমাণে পেঁয়াজ বিদেশে রপ্তানি করা হয়। এপ্রিল থেকে জুনের মধ্যে এদেশ থেকে ১৯.৮ মিলিয়ন ডলারের পেঁয়াজ রফতানি করা হয়েছিল। ভারত থেকে সবচেয়ে বেশি পেঁয়াজ রফতানি হয় শ্রীলঙ্কা, বাংলাদেশ, মালয়েশিয়া এবং সংযুক্ত আরব আমিরশাহীতে।

<p><strong>সরকারি বিবৃতিতে অবশ্য রপ্তানি বন্ধের কোন কারণ উল্লেখ করা হয়নি। তবে ধরে নেয়া হচ্ছে ভারতের অভ্যন্তরীণ বাজারে পেঁয়াজের দাম নিয়ে যে অস্থিরতা চলছে, সেটাই এই সিদ্ধান্তের পেছনে মূল কারণ।</strong></p>

সরকারি বিবৃতিতে অবশ্য রপ্তানি বন্ধের কোন কারণ উল্লেখ করা হয়নি। তবে ধরে নেয়া হচ্ছে ভারতের অভ্যন্তরীণ বাজারে পেঁয়াজের দাম নিয়ে যে অস্থিরতা চলছে, সেটাই এই সিদ্ধান্তের পেছনে মূল কারণ।

<p><strong>গত বছরের সেপ্টেম্বর মাসেও শেষ সপ্তাহেও কেন্দ্র হঠাত্‍ আচমকা পেঁয়াজ রফতানি বন্ধ করে দিয়েছিল৷ ফলে বিপাকে পড়েছিল বাংলাদেশ সহ প্রতিবেশী কয়েকটি রাষ্ট্র ৷ ভারতের পেঁয়াজের উপরে বাংলাদেশ খুবই নির্ভরশীল৷</strong></p>

গত বছরের সেপ্টেম্বর মাসেও শেষ সপ্তাহেও কেন্দ্র হঠাত্‍ আচমকা পেঁয়াজ রফতানি বন্ধ করে দিয়েছিল৷ ফলে বিপাকে পড়েছিল বাংলাদেশ সহ প্রতিবেশী কয়েকটি রাষ্ট্র ৷ ভারতের পেঁয়াজের উপরে বাংলাদেশ খুবই নির্ভরশীল৷

<p><strong>এবারও পেঁয়াজ রফতানি বন্ধ হওয়ায় বিপাকে পড়েছে প্রতিবেশী রাষ্ট্রটি। পেঁয়াজের মূল্যবৃদ্ধি রুখতে সোমবার দুপুর ১২টা থেকে &nbsp;হিলি কাস্টমসে বন্ধ হয়ে গিয়েছে পেঁয়াজ রফতানি। সব ধরনের পেঁয়াজ রফতানি বন্ধ থাকবে পরবর্তী নির্দেশ না দেওয়া পর্যন্ত।&nbsp;</strong></p>

এবারও পেঁয়াজ রফতানি বন্ধ হওয়ায় বিপাকে পড়েছে প্রতিবেশী রাষ্ট্রটি। পেঁয়াজের মূল্যবৃদ্ধি রুখতে সোমবার দুপুর ১২টা থেকে  হিলি কাস্টমসে বন্ধ হয়ে গিয়েছে পেঁয়াজ রফতানি। সব ধরনের পেঁয়াজ রফতানি বন্ধ থাকবে পরবর্তী নির্দেশ না দেওয়া পর্যন্ত। 

<p><strong>আমদানি করার ভারতীয় পেঁয়াজের ওপর বাংলাদেশের ব্যাপক নির্ভরতা রয়েছে। গত বছরের এই সিদ্ধান্তের ফলে বাংলাদেশের বাজারে পেঁয়াজের দাম অগ্নিমূল্য হয়ে উঠেছিল। সেবার নিষেধাজ্ঞা বহাল ছিল কয়েক মাস।</strong></p>

আমদানি করার ভারতীয় পেঁয়াজের ওপর বাংলাদেশের ব্যাপক নির্ভরতা রয়েছে। গত বছরের এই সিদ্ধান্তের ফলে বাংলাদেশের বাজারে পেঁয়াজের দাম অগ্নিমূল্য হয়ে উঠেছিল। সেবার নিষেধাজ্ঞা বহাল ছিল কয়েক মাস।

<p><strong>গতবছর যখন ভারত পেঁয়াজ রফতানি বন্ধ করে, তখন দিল্লিতে এসে এক সাক্ষাত্‍কারে বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা জানিয়েছিলেন, তিনি পেঁয়াজ খাওয়া ছেড়ে দিয়েছেন। &nbsp;কারণ, ভারত পেঁয়াজ রফতানি বন্ধ করায় বাংলাদেশের বাজারে পেঁয়াজের দাম আকাশছোঁয়া হয়ে যায়৷</strong></p>

গতবছর যখন ভারত পেঁয়াজ রফতানি বন্ধ করে, তখন দিল্লিতে এসে এক সাক্ষাত্‍কারে বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা জানিয়েছিলেন, তিনি পেঁয়াজ খাওয়া ছেড়ে দিয়েছেন।  কারণ, ভারত পেঁয়াজ রফতানি বন্ধ করায় বাংলাদেশের বাজারে পেঁয়াজের দাম আকাশছোঁয়া হয়ে যায়৷

<p><strong>ভারত হচ্ছে বিশ্বের সবচেয়ে বড় পেঁয়াজ রফতানি কারক দেশ। প্রতি বছর এদেশ &nbsp;প্রায় ২০ লাখ টন পেঁয়াজ রফতানি করে।</strong></p>

ভারত হচ্ছে বিশ্বের সবচেয়ে বড় পেঁয়াজ রফতানি কারক দেশ। প্রতি বছর এদেশ  প্রায় ২০ লাখ টন পেঁয়াজ রফতানি করে।

loader