110

এ এক অদ্ভুত মেলা। যেখানে শুধু বিক্রির জন্য থাকে যৌবনপ্রাপ্ত মেয়েরা। যুবতী থেকে শুরু করে মাঝ বয়সী মেয়েরা এই মেলায় অংশ নেন। কিন্তু কেন এখানে মেয়েদের বেচা কেনা করা হয়।

Subscribe to get breaking news alerts

210

নারীর সমানাধিকারের যুগে এরকম এক মেলার কথা শোনা বেশ আশ্চর্যের। কিন্তু রমরমিয়ে এই মেলা চলে আসছে। বিক্রি বাটাও হয় জোরদার। 

310

মেলায় অংশগ্রহণ করার একটাই শর্ত মহিলাদের কুমারী হওয়া বাধ্যতামূলক। হ্যাঁ এমনটাই হয়ে আসছে বুলগেরিয়ার স্তারা জাগোরা অঞ্চলে।

410

এই মেলায় পাত্রী হিসেবে যোগ দেওয়া মহিলাদের দর কয়েক লক্ষ টাকা পর্যন্ত ওঠে। সেই টাকা পুরো মেটাতে হয় পাত্রপক্ষকে। তবেই বিয়েতে রাজী হন মহিলারা। 

510

মেলার মঞ্চে বিবাহযোগ্য মেয়েদের তুলে নিলামের মতো দাম দর হাঁকাহাঁকি করেন তাদের পিতা মাতারা। আর পুরুষরা তাদের পছন্দের মহিলার জন্য সেই অর্থে মূল্য দেয়। কোন পাত্রী কেমন দর পাবে তার সৌন্দর্য, পোশাক-পরিচ্ছদ ও ব্যবহারের উপর নির্ভর করে। 

610

রোমা জনগোষ্ঠীর মানুষেরা এইভাবে বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হন। সেখানে মেলাতে পণ্য হিসেবে বিক্রি করা হয় যুবতীদের। সেখানে পছন্দের স্ত্রী বেছে নেন পুরুষরা। 

710

এই মেলার নাম bridal market। এটি অত্যন্ত জনপ্রিয় ও ঐতিহ্যপূর্ণ মেলা বুলগেরিয়ার। কিন্তু এভাবে মেয়েদের বিক্রি করে কেন বিয়ে দেওয়া হয়। এর পিছনে রয়েছে গভীর কারণ। 

810

শুধুমাত্র তামার জিনিসপত্র বানিয়ে এরা জীবন-যাপন করে তাই দারিদ্র এদের নিত্যসঙ্গী। জাঁকজমক ভাবে বিবাহের আয়োজন করে খরচ করা এদের পক্ষে সম্ভব না।

910

তাই এই মেলা দরিদ্র বাবা মায়ের কাছে মেয়ের বিয়ে দেওয়ার বড় ভরসা। আর পুরুষদের কাছে জীবনসঙ্গী খুঁজে পাওয়ার জায়গা। 

1010

তবে কেবল শুধু মহিলাদের পছন্দ করলে হবেনা পুরুষদের খরচ করতে হবে কাঁড়ি কাঁড়ি টাকাও। কোন মহিলাকে জীবনসঙ্গিনী হিসেবে পছন্দ হলে তার জন্য তাকে যথার্থ মূল্য দিতে হবে।