কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রকের দেওয়া তথ্য অনুযায়ী বুধবার ভারতের কোভিড-১৯ রোগাীর সংখ্যা ৭.৪ লক্ষ ছাড়িয়ে গেল। অন্যদিকে মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ২০,৬৪২ জন। করোনাভাইরাস সংক্রমণের দাপট এই মুহূর্তে দেশে তীব্র আকার ধারণ করার পরও অবশ্য সরকারের দাবি, প্রতি ১০ লক্ষ জনসংখ্যায় করোনাভাইরাস সংক্রমণ এবং প্রাণহানির সংখ্যায় পৃথিবীর মধ্যে সবচেয়ে ভালো অবস্থায় আছে ভারত।

স্বাস্থ্য মন্ত্রকের দেওয়া তথ্য অনুযায়ী বুধবার সকাল পর্যন্ত গত ২৪ ঘন্টায় ভারতে করোনাভাইরাস জনিত কারণে ৪৮২ জনের মৃত্যু হয়েছে। এবং প্রায় ২২,৭৫২ জন নতুন করোনাভাইরাস আক্রান্তের সন্ধান মিলেছে। সবমিলিয়ে দেশে এখন সক্রিয় করোনভাইরাস কেসের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ২.৬ লক্ষে।

সেই সঙ্গে মন্ত্রকের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে ভারতে কোভিড -১৯ পরীক্ষার সংখ্যা ১ কোটি ৪০ লক্ষ ছাপিয়ে গিয়েছে। তাদের তথ্য বলছে বুধবার সকাল পর্যন্ত ভারতে মোট কোভিড পরীক্ষা হয়েছে ১,০৪,৭৩,৭৭১ টি। মঙ্গলবার সকাল থেকে বুধবার সকালের মধ্যে নমুনা পরীক্ষা হয়েছে ২,৬২,৬৭৯টি, বলে জানিয়েছে ইন্ডিয়ান কাউন্সিল অফ মেডিকেল রিসার্চ।

তবে আশঙ্কার বিষয় হলো ববর্তমানে ভারতে প্রতিদিনই কোভিড-১৯ জনিত কারণে নথিভুক্ত মৃত্যুর সংখ্যা ক্রমে বৃদ্ধি পাচ্ছে। গত ২৪ ঘন্টায় ভারতে মৃত্যুর সংখ্যাটা কিছুটা কম থাকলেও, গত ৪ জুলাই অর্থাৎ শনিবার ভারতে ২৪ ঘন্টায় ৬১৩ জনের মৃত্যু হয়েছিল। ওই দিন গোটা বিশ্বের মধ্যে ভারতের থেকে করোনা মৃতের সংখ্যা একমাত্র বেশি ছিল ব্রাজিলে (১,০৯৯)। এর আগে এই বিষয়ে ব্রাজিল, মেক্সিকো এবং আমেরিকার চেয়ে পিছিয়ে ছিল ভারত।