বক্সঅফিস কাঁপিয়ে দিয়েছিল হলিউডি সিনেমা 'রাইজ অব দ্য প্ল্যানেট অব এপস'। সেখানে দেখা গিয়েছিল, একটি তথাকথিত ইতর শ্রেনীর প্রাণী, মানুষের মতো চিন্তাভাবনা করার ক্ষমতা অর্জন করছে এবং তার থেকে সে বুঝতে পারছে, মানুষ কী পরিমাণ তাদের উপর নিপীড়ন চালাচ্ছে। সেই থেকে তার নেতৃত্বে পুরো এপ প্রজাতি মানব সভ্যতার বিরুদ্ধে বিদ্রোহ ঘোষণা করেছিল। লকডাউনের বাজারে এমন একটি ভিডিও ভাইরাল হয়েছে, যা দেখে অনেকের মনেই প্রশ্ন জাগছে, সেই দিন চলে এল নাকি? করোনার হানায় বিবর্তনের গতি কী বেড়ে গেল?

এদিন ভারতীয় অরণ্য পরিষেবা বিভাগ (আইএফএস)-এর এক কর্তা সুশান্ত নন্দ, তাঁর টুইটার অ্যাকাউন্টে এই ভিডিওটি পোস্ট করেন। সেখানে দেখা যাচ্ছে লকডাউনে থাকা ভারতেরই কোনও একটি জায়গায় একটি বানর একটি বাড়ির ছাদে বসে মনের সুখে ঘুড়ি ওড়াচ্ছে। তবে তারপরেও বানর তো, ঘুড়িটি হাতে পেতে , শীঘ্রই, তাকে দেখা যায় সুতো টেনে ঘুড়িটা নামিয়ে আনতে। সঙ্গের ক্যাপশনে সুশান্ত নন্দ মজা করে লিখেছেন, 'লকডাউনের কারণে বিবর্তন দ্রুত ঘটছে। বানর একটি ঘুড়ি উড়ছে। ভিডিওটি দেখে অবিশ্বাস্য মনে হতে পারে আন্দাজ করে তিনি আরও একবার জোর দিয়ে বলেছেন, 'হ্যাঁ, এটি নিশ্চিতভাবে একটি বানর'।

ভিডিওটি পোস্ট করার সঙ্গে সঙ্গে ভাইরাল হয়েছে। সাড়া পড়ে গিয়েছে ভারতীয় নেটিজেনদের মধ্যে। একজন লিখেছিলেন, ফের রাইজ অব দ্য প্ল্যানেট এপস দেখা যাচ্ছে। আরেকজন বলেছেন, বানরও ঘুড়ি ওড়াতে পারে তা তিনি কোনওদিন কল্পনাও করতে পারেননি। আরেকজন এই দৃশ্য দেখে কিছুটা দার্শনিকদের মতো বলেছেন, স্বাভাবিকতা ফিরিয়ে আনতে এটা হয়তো প্রকৃতি শুদ্ধিকরণ পদক্ষেপের একটা অংশ। সত্যি সত্যি করোনাভাইরাসের হানা, আর তার জেরে লকডাউন ভাবতে বাধ্য করছে, মানুষের দিন কি তাহলে একেবারেই গেল? এটাই কি প্রকৃতির ইচ্ছে?