মর্মান্তিক দুর্ঘটনায় প্রাণ গেল সেনা জওয়ানের। ঘটনাটি ঘটেছে হিমাচল প্রদেশে। প্রবল বর্ষণের ফলে একটি গেস্ট হাউস বিল্ডিং ধসে পড়ে প্রাণ গেল ছয়জন সেনা জওয়ান-সহ একজনের। সংবাদ সংস্থা সূত্রে খবর, এখনও ধ্বংসস্তূপের মধ্যে প্রায় ৩০ জন সেনা আটকে রয়েছেন বলে জানা গিয়েছে। 

ঘটনাটি ঘটে সোলানের কুমারহাট্টি-নাহান হাইওয়ের কাছে। হিমাচল প্রদেশের কুমারহাট্টিতে যে অংশে বিল্ডিংটি ভেঙে পড়েছে সেটি একটি ধাবা। প্রবলল বৃষ্টিপাতের জেরেই আচমকা সেটি ভেঙে পড়ে খবর। ঘটনার পরই সেখানে পৌঁছায় উদ্ধারকারী দল। তাঁদের যৌথ প্রচেষ্টায় এক এক করে ধ্বংসস্তূপের নীচে চাপা পড়ে থাকা সেনা জওয়ানদের উদ্ধার করা হচ্ছে। যদিও প্রবল বৃষ্টি ও ধসের কারণে উদ্ধারকার্য খানিকটা হলেও ব্যহত হচ্ছে। ধ্বংসস্তূপের নীচে অন্তত ৩০ সেনা আটকে থাকতে পারে বলে মনে করা হচ্ছে। এখনও পর্যন্ত উদ্ধার করা হয়েছে ১০জনকে। ইতিমধ্যই খবর পেয়ে এলাকা পরিদর্শণ করতে সেখানে উপস্থিত হল জেলা প্রশাসনের আধিকারিকরা। 

কোথাও বন্যা, কোথাও খরা- প্রকৃতির খামখেয়ালিপনায় একই সময়ে ভিন্ন পরিস্থিতির সাক্ষী দেশের এই ৬ জায়গা

সূত্রের খবর, ধ্বংসস্তূপে আটকে পড়া মানুষদের মধ্যে সেনা জওয়ান ছাড়াও সাধারণ মানুষও ছিলেন। সূত্রের খবর, সেনা জওয়ানরা তাঁদের পরিবারকে সঙ্গে নিয়ে উত্তরাখণ্ডের উদ্দেশে যাত্রা করেছিলেন। সেই সময়ে খাওয়া দাওয়া করতে গিয়েই ওই ধাবায় ওঠেন তাঁরা। আর তার পরই ঘটে যায় এই বিপত্তি।