দেশে না ফেরার কোনও চেষ্টাই বাকি রাখেননি পলাতক হীরে ব্যবসায়ী মেহুল চোকসি। কিন্তু অবশেষে তাঁকে দেশে ফিরতে হবে বলে জানিয়ে দিল অ্যান্টিগা সরকার। অ্যান্টিগুয়ার প্রধানমন্ত্রী গ্যাস্টন ব্রাউন এদিন একটি বিবৃতি দিয়ে জানিয়েছেন, পঞ্জাব ন্যাশনাল ব্যাঙ্ক কেলেঙ্কারিতে অভিযুক্ত মেহুল চোকসির অ্যান্টিগুয়ার নাগরিকত্ব কেড়ে নেওয়া হবে। আর সেই কারণে যত শীঘ্রই সম্ভব ভারতে তাঁকে ফিরতেই হবে। তিনি আরও জানান যে, আর্থিক তছরুপের সঙ্গে যুক্ত রয়েছে এমন কাউকেই নিরাপত্তা দেবে না অ্যান্টিগুয়া সরকার।

প্রসঙ্গত, পঞ্জাব ন্যাশনাল ব্যাঙ্কের ১৩,৪০০ কোটি টাকার আর্থিক কেলেঙ্কারিতে অভিযুক্ত মেহুল চোকসি শারীরিক অসুস্থতার কারণে দেশে ফিরতে পারবেন না বলে জানিয়েছিলেন। শারীরির অসুস্থতার কারণেই দেশে ফেরার ধকল তিনি নিতে পারবেন না বলে জানান তিনি। এরপর তাঁকে ফেরাতে এনফোর্সমেন্ট ডিরেক্টরির তরফ থেকে এয়ার অ্যাম্বুলেন্স পাঠানোর প্রস্তাব দেওয়া হয় তাঁকে।

সূত্রের খবর বম্বে হাইকোর্টের তরফে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে, তাঁর চিকিৎসা সংক্রান্ত যাবতীয় নথি মুম্বইয়ের জেজে হাসপাতালে পাঠাতে হবে। সেইসব মেডিকেল রিপোর্ট যাচাই করে দেখা হবে যে, দেশে ফেরার জন্য তাঁর শারীরিক অবস্থা স্থিতিশীল কি না। প্রসঙ্গত, পরের মাসেই অ্যান্টিগুয়ার আদালতে এই মামলার শুনানি হবে।