Asianet News Bangla

যোগীর রাজ্যে জামিনের মূল্য ৫০ লক্ষ টাকা, ঘটনা ঘিরে হইচই

  • যোগীরাজ্য়ে এবার তুঘলঘী কাণ্ড করে বসলো প্রশাসন
  • সিএএ-বিরোধী আন্দোলনে যুক্ত ছিলেন অনেকই
  • তাঁদের এবার ৫০ লাখ টাকা জামিনে সই করতে বলা হল
  • নোটিস পাঠিয়েছে আদালত নয়, রাজ্য়ের প্রশাসন
At least 11 people involved with anti-CAA protests have been served notices by the district administration
Author
Kolkata, First Published Feb 12, 2020, 7:20 PM IST
  • Facebook
  • Twitter
  • Whatsapp

৫০ লাখ টাকার বন্ড সই করলে তবেই পাওয়া যাবে জামিন! জানা গিয়েছে, সিএএ-বিরোধী প্রতিবাদে যুক্ত এমন ১১ জনকে এই পঞ্চাশলাখি নোটিস পাঠিয়েছে উত্তরপ্রদেশের সম্ভলের জেলা প্রশাসন। আন্দোলনের সঙ্গে  যুক্তদের ৫০ লাখ টাকার ব্যক্তিগত জামিন দিতে হবে বলে জানিয়েছে সেখানকার জেলা প্রশাসন। সেখানে তাঁদের এই মর্মে মুচলেকা দিতে হবে যে, তাঁরা ভবিষ্যতে আর এই ধরনের কোনও গণ্ডগোলকে উৎসাহ দেবেন না। যার সহজ অর্থ, ভবিষ্য়তে আর  সিএএ-বিরোধী আন্দোলনে যোগ দিতে পারবেন না তাঁরা।

এদিকে এই বিপুল পরিমাণ ব্যক্তিগত জামিনের অঙ্ক শুনে অনেকেই রীতিমতো তাজ্জব। আন্দোলনকারীদের ৫০ লাখ টাকা জামিন দিতে বলা মানে তো ঘুরিয়ে তাঁদের জামিন না-দেওয়া। প্রসঙ্গত, জুডিশিয়াল ম্য়াজিস্ট্রেট নন, এই জামিনের এই আদেশ দিতে নোটিস পাঠিয়েছে জেলা প্রশাসন। সিএএ-বিরোধী আন্দোলনের প্রতি সরকারি দৃষ্টিভঙ্গির প্রতিফলন ঘটেছে এই নোটিসে, মনে করছেন বিরোধীরা।

প্রসঙ্গত, ভারতীয় দণ্ডবিধির  ১১১ ধারায় এই নোটিস জারি করা হয়েছে। এক্ষেত্রে,  (জুডিশিয়াল ম্য়াজিস্ট্রেট নন), এক্সগিকিউটিভ ম্য়াজিস্ট্রেট চাইলে কোনও ব্য়ক্তিকে এই নোটিস পাঠাতে পারে পুলিশ রিপোর্টের ভিত্তিতে, যদি তিনি মনে করেন সংশ্লিষ্ট ব্য়ক্তি শান্তিভঙ্গ করতে পারেন। এক্ষেত্রে, সরাসরি বিচারবিভাগ নয়, বরং প্রশাসনের তরফেই জারি করা হয় নোটিস।

এর আগে উত্তরপ্রদেশের মুখ্য়মন্ত্রী আন্দোলনকারীদের সম্পত্তি বাজেয়াপ্ত করার হুমকি দিয়েছিলেন। সেই মতো নোটিসও পাঠানো হয়েছিল কয়েকজনকে। প্রসঙ্গত, সিএএ-বিরোধী আন্দোলনে সবচেয়ে বেশি উত্তাল হয়েছে উত্তরপ্রদেশ। আন্দোলনে নিহত হয়েছেন বেশ কয়েকজন। পুলিশের বিরুদ্ধে গুলি চালানোর অভিযোগ উঠলেও পুলিশ তা অস্বীকার করেছে। বহু আন্দোলনকারীকে গ্রেফতার করা হয়েছে। কয়েকমাসের বাচ্চাকে বাড়িতে রেখে প্রতিবাদে অংশ নিতে গিয়ে গ্রেফতার হয়েছেন দম্পত্তি, এমন ঘটনার নজিরও রয়েছে। যদিও সম্প্রতি বেশ কয়েকজন আন্দোলনকারীকে জামিনে মুক্তি দিয়েছে আদালত। এরপর ব্য়াকফুটে পড়েই কি ৫০ লাখ টাকা জামিনের এই তুঘলকী নির্দেশ জারি করল যোগীরাজ্য়ের প্রশাসন? মানবাধিকার কর্মী কিরীটি রায়ের কথায়, "এত লাখ টাকার জামিনের কথা আগে শুনিনি। আপনাদের মুখ থেকেই প্রথমে শুনলাম। যদি এটা হয়ে থাকে তাহলে তা জামিনের অধিকারকেই অস্বীকার করার শামিল। তবে এই নির্দেশ কিন্তু আদালত দেয়নি। দিয়েছে প্রশাসন। তাই এর দায় সম্পূর্ণভাবে সরকারের ওপরই বর্তায়।"

সাব ডিভিশনাল ম্য়াজিস্ট্রেট রাজেশ কুমারের কথায়, "ইতিমধ্য়েই ১১জনকে এই নোটিস পাঠানো হয়েছে, আরও ২৪ জনকে পাঠানো হবে শীঘ্রই।"

Follow Us:
Download App:
  • android
  • ios