মঙ্গলবার কর্নাটক বিধানসৌধে আস্থাভোটে অনুপস্থিত থাকলেন, সেই রাজ্যে বহুজন সমাজবাদি পার্টির একমাত্র বিধায়ক এন মহেশ। আর সেই কারণে তাঁকে দল থেকে বহিষ্কার করলেন মায়াবতী। ফলে আপাতত কর্নাটক বিধানসৌধ থেকে মুছে গেল বিএসপি-র নাম।

এতদিন জোট সরকারকেই সমর্থন করেছিল বিএসপি। আস্থাভোটের আগে রবিবার মায়াবতী নিজে মহেশকে আস্থাভোটে জোটের পক্ষে ভোট দেওয়ার নির্দেশ দিয়েছিলেন। কিন্তু নেত্রীর নির্দেশ তিনি মানলেন না। এদিন তিনি ছাড়াও আরও ১৯ জন বিধানসৌধে অনুপস্থিত ছিলেন।

আগেই জোটের ১৬ জন বিধায়ক ইস্তফা দিয়েছিলেন। তাঁরা ছাড়াও আগে জোটকে সমর্থন দেওয়া দুই নির্দল বিধায়কও ভোটদানে বিরত থাকলেন। সব মিলিয়ে ২২৪ জনের বিধানসৌধে ভোট পড়ল ২০৪টি।

এদিন আস্থাভোটের পরই মায়াবতী নিজেই তাঁর টুইটার হ্যান্ডেলে টুইট করে জানান, পার্টির হাইকমান্ডের নির্দেশ অমান্য করে শৃঙ্খলাভঙ্গ করেছেন এন মহেশ। পার্টি এই বিষয়টি অত্যন্ত গুরুত্ব দিয়ে দেখছে এবং তাঁকে জরুরি ভিত্তিতে বহিষ্কার করছে।