প্রবল বৃষ্টিপাতের কারণে দেশের একাধিক রাজ্যে জারি হয়েছে বন্যা পরিস্থিতি। লাগাতার বৃষ্টিপাতের কারণে একাধিক রাজ্যে ব্যহত হয়েছে যোগাযোগ ব্য়বস্থা। রাস্তা-ঘাটে জল জমে গিয়ে যানজটের কারণে একাধিক রাজ্য়ে চরম নাকাল হয়েছেন সাধারণ মানুষ। 

কেরলে বন্যার জেরে এখনও পর্যন্ত মৃত্যু হয়েছে ৭২ জনের। পাশাপাশি কর্নাটক, মহারাষ্ট্র, গুজরাত-এ এখনও পর্যন্ত প্রাণ গিয়েছে মোট ৯৭ জনের। বৃষ্টিপাতের পরিমাণ খানিকটা কমলেও এখনও জারি রয়েছে মৃত্যু মিছিল। 

কেরলে প্রবল  বন্যায় ক্ষতিগ্রস্থদের সাহায্যের জন্য আবেদন জানিয়েছেন ওয়ানড়-এর সাংসদ রাহুল গান্ধী। এদিন বন্যা বিধ্বস্ত এলাকা পরিদর্শন করে এসে নিজের ফেসবুক পেজ-এ রাহুল লেখেন সকল মানুষ যেন নিজেদের সাধ্যমতো বন্যা পীড়িদের সাহায্য করার জন্য আবেদন জানান। এদিন সোশ্যাল মিডিয়ায় রাহুল গান্ধী লেখেন, 'আমার সংসদীয় এলাকা ওয়ানাড় বন্যার জেরে চরম ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে, প্রায় কয়েক হাজার মানুষ ঘরছাড়া, অনেককে ত্রাণ শিবিরে নিয়ে যাওয়া হয়েছে। '

 

তিনি আরও বলেন 'জলের বোতল, মাদুর, কম্বল, অন্তর্বাস, টুথপেস্ট, ডেটল, গুঁড়ো সাবান, ব্লিচিং পাউডার এবং ক্লোরিন-এর মতো জিনিস ভীষণভাবে প্রয়োজনীয়।' সাধারণ মানুষের কাছে তাঁর অনুরোধ সকলে যেন এই জিনিসগুলি দান করে বন্যা পীড়িতদের পাশে দাঁড়ান।