রবিরার ভীমসেনার ডাকা ২৪ ঘণ্টার ভারত বনধে আংশিক সাড়া। বিভিন্ন জায়গা থেকে পথ অবরোধের খবর। আর সেইসঙ্গে পুলিশের পক্ষ থেকে অবরোধ তুলে দেওয়ার চেষ্টা। ইতিমধ্য়েই উত্তরপূর্ব দিল্লির গুরুত্বপূর্ণ রাস্তা জাফরাবাদ থেকে পথ অবরোধের খবর এসেছে। শনিবার রাত থেকেই কয়েকশো মহিলা সেখানে পথ অবরোধ করে সংশোধিত নাগরিকত্ব আইনের বিরুদ্ধে বিক্ষোভ দেখাচ্ছেন বলে জানিয়েছে দিল্লি পুলিশ। মহিলা বিক্ষোভকারীরা ভিমসেনা প্রধান চন্দ্রশেখর আজাদের ডাকা ভারত বনধকেও সমর্থন করে স্লোগান দিচ্ছেন।

প্রসঙ্গত, এ মাসের গোড়ায় সংরক্ষণ নিয়ে সুপ্রিম কোর্ট একটি গুরুত্বপূর্ণ রায় দেয়। তাতে বলা হয়, সরকারি চাকরিতে কোটা ও সংরক্ষণ কোনও মৌলিক অধিকার নয়। এই রায়ের বিরুদ্ধেই কার্যত ভীমসেনার ভারত বনধ।

বনধে ভীমসেনাকে সমর্থন জানাচ্ছে একাধিক রাজনৈতিক দল। শনিবার রাত থেকেই এসেছে পথ অবরোধের খবর। বেলা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে বিক্ষোভ-অবরোধের ঘটনা বাড়়তে থাকছে। এই পরিস্থিতিতে, সিএএ ও এনআরসির প্রতিবাদে যাঁরা পথে নেমে বিক্ষোভ দেখাচ্ছেন গত দুমাস ধরে, তাঁদের একটা বড় অংশই এই বনধকে সমর্থন জানিয়েছে পথে নেমেছেন বলে খবর।

শনিবার রাত থেকে জাফরাবাদ মেট্রো স্টেশনের কাছে শদুয়েক মহিলা ধর্নায় বসেন। বিক্ষোভকারী মহিলারা এনআরসি বাতিলের দাবি জানালেও এদিনের বনধের সমর্থনে স্লোগান তোলেন। রাস্তা অবরোধও করা হয়। রবিবার সকালে পুলিশ অবরোধ তুলে দিতে চেষ্টা করে।  কিন্তু এখনও অবধি সেই অবরোধ তোলা সম্ভব হয়নি বল খবর। জানা গিয়েছে, বিক্ষোভকারী মহিলাদের হাতে বাঁধা রয়েছে নীল রঙের ব্য়ান্ড।  রাতে তাঁরা স্লোগান তোলেন, 'জয় ভিম'।