রবিবার সকালে স্বাস্থ্যমন্ত্রক জানিয়েছিল, গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে সংক্রমণের শিকার হয়েছেন ৬,৫৬৬ জন। এতদিন পর্যন্ট এটাই ছিল দেশে একটিদেন আক্রান্তের সংখ্যায় সর্বোচ্চ। তবে সোমবার সকালে সেই রেকর্ডও ভেঙে গেল। গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে সংক্রমণের শিকার প্রায় সাত হাজার। স্বাস্থ্যমন্ত্রকের দেওয়া পরিসংখ্যান অনুযায়ী গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে করোনা পজিটিভ বেরিয়েছেন ৬,৯৭৭। ফলে দেশে সামগ্রিকভাবে আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ১ লক্ষ ৩৮ হাজার ৮৪৫। 

 

 

দেশে আক্রান্তের সঙ্গে বেড়েছে মৃতের সংখ্যাও। চার হাজার ছাড়িয়ে গিয়েছে মৃতের। গত ২৪ ঘণ্টায় করোনা সংক্রমণে মৃত্যু হয়েছে ১৫৪ জনের। ফলে সোমবার সকালে স্বাস্থ্যমন্ত্রকের দেওয়া পরিসংখ্যান অনুযায়ী বর্তমানে দেশে করোনা সংক্রমণে মৃতের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ৪,০২১ জন।

স্বাস্থ্যমন্ত্রক জানাচ্ছে, দেশে করোনাকে হারিয়ে সুস্থ হয়ে উঠেছেন ৫৭,৭২০ জন। ফলে দেশে বর্তমানে সক্রিয় আক্রান্তের সংখ্যা ৫৭,৭২০। দেশে এখনও পর্যন্ত করোনা আক্রান্ত রাজ্যগুলির মধ্যে এক নম্বরেই রয়েছে মহারাষ্ট্র। ইতিমধ্যে মহারাষ্ট্রে আক্রান্তের সংখ্যা ৫০ হাজার ছাড়িয়ে গিয়েছে। মৃতের সংখ্যা ১,৬০০ বেশি। এর মধ্যে দেশের বাণিজ্য রাজধানীতেই কেবল আক্রান্তের সংখ্যা ৩০ হাজার ছাড়িয়েছে। মৃতের সংখ্যা হাজারের বেশি। গত ২৪ ঘণ্টায় মুম্বইতে করোনা সংক্রমণের শিকার হয়েছেন ১,৭২৫ জন। 

এদিকে রবিবারই আক্রান্তের সংখ্যায় ইরানকে ছাড়িয়ে গিয়েছে ভারত। পলে বর্তমানে এশিয়ায় করোনা আক্রান্ত দেশ হিসাবে এক নম্বরে উঠে এসেছে ভারত। পাশাপাশি বিশ্বের প্রথম ১০টি করোনা আক্রান্ত দেশের তালিকাতেও জায়গা করে নিয়েছে ভারত।